fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

পণের না পেয়ে গৃহবধূকে কেরোসিন তেল ঢেলে পুড়িয়ে খুনের আভিযোগ স্বামী ও শ্বশুরবাড়ি বিরুদ্ধে

মিল্টন পাল,মালদা: বিয়ের দশ বছর পরে পণের ৭০হাজার টাকা না পেয়ে গৃহবধূকে গায়ে কেরোসিন তেল ঢেলে পুড়িয়ে খুনের আভিযোগ স্বামী ও মৃতের শ্বশুরবাড়ি বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে ইংরেজবাজার থানার মিল্কি গ্রাম পঞ্চায়েতের নতুন নঘরিয়া এলাকায়।ঘটনার পর থেকে স্বামী ও তার পরিবারের সদস্যরা গা ঢাকা দিয়েছে। মৃতদেহ ময়না তদন্তে পাঠিয়ে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

পুলিশ সুত্রে জানা গিয়েছে, মৃত গৃহবধূর নাম রুপালি বিবি(২৭)। মৃত গৃহবধুর আত্মীয় রাব্বানি খান বলেন,ইংরেজবাজার থানার মিলকি গ্রাম পঞ্চায়েতের ভগবানপুর কলোনি এলাকার ফাজিল খানের মেয়ে রুপালির সাথে প্রায় ১০বছর আগে সামাজিক মতে বিবাহ হয় ইংরেজবাজার থানার ফুলবাড়ি গ্রাম পঞ্চায়েতের নতুন নঘরিয়া এলাকার সাইদুল শেখের। সাইদুল পেশায় শ্রমিক।তাদের দুই ছেলে রয়েছে। বিবাহর পর থেকেই শুরু হয় পণের দাবিতে অত্যাচার বলে অভিযোগ। বিয়ের সময় দু লক্ষ টাকা সহ সমস্ত ঘর সাজিয়ে দেওয়া হয়।তার পরেও আবার ৭০ হাজার টাকার জন্য চাপ দেয় মেয়ের বাড়ির কাছে। মেয়ের বাবা না দিতে পারায় গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন লাগিয়ে দেয় স্বামী সহ শ্বশুরবাড়ি লোকেরা।

গৃহবধুর চিৎকারে গ্রামবাসীরা ছুটে এসে উদ্ধার করে ভর্তি করা হয় মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। চিকিৎসা চলাকালীন বুধবার সকালে মৃত্যু হয় ওই গৃহবধূর। স্বামী সাইদুল সেখ শ্বশুর মহিন সেখ-শাশুড়ি সাদেক বিবি সহ ৫ জনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয় মৃতের পরিবারের পক্ষ থেকে। ইংরেজবাজার থানার পুলিশ তদন্তে নেমে ইতিমধ্যে স্বামীকে গ্রেফতার করেছে।  ইংরেজবাজার থানার পুলিশ সুত্রে আরও জানা যায়, মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।স্বামীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পরিবারের বাকি সদস্যরা ইতিমধ্যে গা ঢাকা দিয়ে রয়েছে।ঘটনার তদন্ত ও অভিযুক্তদের খোঁজে তল্লাশী শুরু করেছে পুলিশ।

Related Articles

Back to top button
Close