fbpx
একনজরে আজকের যুগশঙ্খদেশহেডলাইন

‘কংগ্রেস ছাড়ছি’, অমিত সাক্ষাতের পরদিনই ঘোষণা অমরিন্দরের

নিজস্ব প্রতিনিধি: বুধবারই বিষয়টি আন্দাজ করা গিয়েছিল। ‌আর বৃহস্পতিবার নিজের মুখেই ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং বললেন তিনি কংগ্রেস ছাড়ছেন। তাঁর কথায়, ‘বারবার অপমানিত হয়েছি। কংগ্রেসে আর নয়।’ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহর সঙ্গে সাক্ষাতের পরদিনই কংগ্রেস ছাড়ার কথা ঘোষণা করলেন পাঞ্জাবের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং। তবে, তিনি বিজেপিতে যোগ দেবেন না বলেই দাবি করেছেন। যদিও সেই সম্ভাবনা একেবারে উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না।

পাঞ্জাব কংগ্রেসে বহুদিন ধরেই অস্থিরতা তৈরি হয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে অমরিন্দরকে। নতুন মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন চরণজিৎ সিং চন্নী। আর অমরিন্দরের  ঘোরতর বিরোধী বলে পরিচিত প্রাক্তন ক্রিকেটার নভজ্যোৎ সিং সিধুকে পাঞ্জাব কংগ্রেসের সভাপতি করা হয়েছে। যদিও সদ্য তিনি সেই পদ থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন। প্রথমে অমরিন্দর সিংয়ের ইস্তফা, নতুন মুখ্যমন্ত্রী নিয়োগ, অমরিন্দরের বিজেপি যোগের জল্পনা এবং তার মধ্যেই প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সিধুর ইস্তফা। সব মিলিয়ে অত্যন্ত ঘটনাবহুল হয়ে উঠেছে পাঞ্জাবের রাজনীতি। আর ঠিক সেই সময় অমরিন্দর বিজেপিতে যোগ দেবেন বলে জল্পনা তুঙ্গে। বুধবার সন্ধ্যায় তিনি দেখা করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহর সঙ্গে। যদিও ক্যাপ্টেনের ঘনিষ্ঠ সূত্রে বলা হয়, এটি রাজনৈতিক সাক্ষাৎ নয়। অমিত শাহর সঙ্গে দেখা করে কৃষি আইন বাতিলের দাবি জানিয়েছেন পাঞ্জাবের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী। তখনকার মতো জল্পনা থামলেও এদিন ফের জল্পনা উস্কে জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভালের সঙ্গে দেখা করতে যান অমরিন্দর। সাক্ষাৎ শেষে জানিয়ে দেন,” আমি কংগ্রেস ছাড়ছি। যে দলে আমাকে বিশ্বাস করা হয় না, অপমান করা হয়, সেখানে আমি থাকব না।”

আর অমরিন্দর কংগ্রেস ত্যাগ করার পর সিধুর সুর একটু হলেও নরম হয়েছে। সূত্রের খবর, তিনি শর্তসাপেক্ষে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতির পদে থাকতে রাজি আছেন। এমনকী তিনি মুখ্যমন্ত্রী চরণজিত সিং চান্নীর সঙ্গেও দেখা করতে রাজি হয়েছেন বলে খবর। অন্যদিকে সিধুর কয়েকটি শর্ত মেনে নিতে রাজি কংগ্রেস হাইকমান্ড। তবে তাঁর সব শর্ত মানা হবে না। তাতে সিধু রাজি না হলে বিকল্প রাস্তার কথা ভাববে কংগ্রেস হাইকমান্ড। সেক্ষেত্রে নতুন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি হিসেবে কারও নাম শীঘ্রই চূড়ান্ত করা হবে বলে খবর।

 

Related Articles

Back to top button
Close