fbpx
গুরুত্বপূর্ণদেশহেডলাইন

নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে ২০২১-এ বাংলা দখল করবে বিজেপি, হুঙ্কার অমিত শাহ’র

ইন্দ্রাণী দাশগুপ্ত, নয়াদিল্লি: ২০২১ সালে বিপুল সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে বাংলার মসনদ দখল করবে বিজেপি। এমনটাই হুঙ্কার দিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, এবং সর্বভারতীয় বিজেপির প্রাক্তন অধ্যক্ষ অমিত শাহ।

 

 

তিনি আরও বলেন, পশ্চিমবঙ্গে যেভাবে হিংসার রাজনীতি চলছে সেই জায়গা থেকে ইতিমধ্যেই পশ্চিমবঙ্গবাসী বর্তমান সরকারের থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে। বামফ্রন্টের ৩৪ বছর তারপরে তৃণমূলের ১০ বছরে বাংলার রাজনৈতিক সংস্কৃতিতে ধীরে ধীরে প্রবেশ ঘটেছে হিংসার । যা এখন মারাত্মক আকার নিয়েছে। তাই বঙ্গবাসী কে এই হিংসার হাত থেকে মুক্তি দিয়ে তাদের পুরনো গৌরব ফিরিয়ে দিতে এবং সোনার বাংলা গড়ে তোলার লক্ষ্যে ২০২১-এর বঙ্গ দখলের লড়াইয়ে বিজেপি সকল সাংগঠনিক শক্তি নিয়ে ঝাপাবে এবং সেই লড়াইতে সামনের সারিতে থেকে নেতৃত্ব দেবেন স্বয়ং অমিত শাহ ।

 

 

সূত্রের খবর করোনা সংক্রমণের পরবর্তী পরিস্থিতিতে বঙ্গ বিজয়ের রণকৌশল নির্ধারিত করার জন্য প্রতিমাসে বেশ কয়েকবার রাজ্যে আসবেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। এবং সেই উদ্দেশ্যে ইতিমধ্যেই কলকাতায় নিজের জন্য অস্থায়ী বাসস্থান ও ঠিক করে ফেলেছেন তিনি।
দ্বিতীয় মোদি সরকারের বর্ষপূর্তি উপলক্ষে সর্বভারতীয় একটি সংবাদ মাধ্যমে সাক্ষাৎকারের সময় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ গত এক বছরে মোদি সরকারের বিভিন্ন সাফল্য নিয়ে আলোচনা করেন । দলের পরবর্তী এজেন্ডা প্রসঙ্গে তিনি জানান, চলতি বছর অক্টোবর-নভেম্বরে বিহার এবং ২০২১ এর মার্চ-এপ্রিলে পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভা নির্বাচন কে এখন পাখির চোখ করে বর্তমানে রাজনৈতিক রণকৌশল তৈরি করছে বিজেপি। এই দুই রাজ্যেই খুব ভালো ফল করার বিষয় যথেষ্ট আশাবাদী ভারতীয় জনতা পার্টি ।

 

 

তিনি বলেন, সাধারণত বড় রাজ্যে নির্বাচনের সময় পরিবর্তিত হয় না । যদিও এটা নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্ত ,তবুও করোনা পরিস্থিতির কারণে এই সময় সূচি বিশেষ কোনো পরিবর্তন হবে না বলেই মনে হয় । স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরো বলেন বিহারে আমরা বেশ ভালো জায়গায় রয়েছি এবং পশ্চিমবঙ্গের নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে ২০২১-এ ক্ষমতায় বিজেপি আসবেই। কারণ গত ৩৪ বছরে বামফ্রন্ট জামানায় এবং তারপর বিগত প্রায় ১০ বছর তৃণমূল সরকারের সময় কালে পশ্চিমবঙ্গে ধীরে ধীরে বেড়ে উঠেছে রাজনৈতিক হিংসার ঘটনা। কেরলের মতো এই রাজনৈতিক হিংসার ক্রমবর্ধমান পরম্পরাকে বন্ধ করতে হবে আমাদের। এই কারণেই পশ্চিমবঙ্গ দখল এখন কেন্দ্রীয় বিজেপির অন্যতম প্রধান প্রথম টার্গেট। কারণ পশ্চিমবঙ্গের যা পরিস্থিতি সেখানে বদল অনিবার্য । গত লোকসভা নির্বাচনে পশ্চিমবঙ্গের মানুষ বুঝিয়ে দিয়েছে যে তারা বিজেপির উন্নয়নের সাথে আছে । তাই পশ্চিমবঙ্গের মানুষ কে ক্রমবর্ধমান হিংসার রাজনীতি থেকে বাঁচাতে এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির দেশের উন্নয়নের যজ্ঞে পশ্চিমবঙ্গবাসীদের ও সামিল করার লক্ষে ২০২১-এর বিধানসভা নির্বাচনে সাংগঠনিক সর্বশক্তি প্রয়োগ করে আমার আসতে চাইছে বিজেপি। কিভাবে পশ্চিমবঙ্গের নির্বাচনে জিতে ক্ষমতায় আসা যায় তার জন্য রাজনৈতিক কৌশল ঠিক করে দল নির্বাচনে অবতীর্ণ হবে। এবং সে ক্ষেত্রে নির্বাচনী রণতরীর একদম সামনের সারিতে দাঁড়িয়ে সেনাপতির ভূমিকায় নির্বাচন পরিচালনা করবেন অমিত শাহ নিজে বলেও এদিন জানান তিনি।

Related Articles

Back to top button
Close