fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে সহবাস, গ্রেফতার ইঞ্জিনিয়ারিং-এর ছাএ

মিলন পণ্ডা, খেজুরি (পূর্ব মেদিনীপুর): বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে এক প্রতিবেশী যুবতীকে সহবাস করার অভিযোগ উঠলো এক ইঞ্জিনিয়ারিং ছাত্রের বিরুদ্ধে। যুবতীর অভিযোগের ভিত্তিতে গ্রেফতার হল ওই ছাত্র। ঘটনাটি ঘটেছে পূর্ব মেদিনীপুর জেলায় খেজুরি থানার জনকা এলাকায়। মঙ্গলবার খেজুরি থানার পুলিশ ইঞ্জিনিয়ারিং ছাত্র দীপু দাসকে গ্রেফতারের পর বুধবার অভিযুক্তকে কাঁথি মহকুমা আদালতে তোলা হলে বিচারক তার জামিন নাকচ করে ১৪ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দেন।

 

 

 

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানাগিয়েছে গ্রেফতার দীপু একটি বেসরকারী কলেজের ইঞ্জিনিয়ারিং দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র।বাড়িতে থাকা কালীন কয়েক বছর আগে প্রতিবেশীর এক যুবতীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে দীপুর। ওই যুবতীকে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে একাধিকবার সহবাস করে দীপু বলে অভিযোগ।এরপর যুবতী সহ পরিবার লোকেরা বিয়ের করার জন্য দীপুকে চাপ দিতে থাকে। যুবতীকে বিয়ে করতে পারবে না বলে জানিয়ে দীপু। তারপরে যুবতী সহ তার পরিবারের লোকেরা বিয়ের করার কথা বললে বেঁকে বসে দীপু সহ তার পরিবারের সদস্যরা। টাকার বিনিময় ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার জন্য চেষ্টা করে অভিযুক্ত পরিবারের সদস্যরা বলে অভিযোগ। অবশেষে মঙ্গলবার সকালে যুবতী খেজুরি থানায় প্রেমিকের বিরুদ্ধে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগ পেয়ে পুলিশ রাতেই অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে।

 

 

 

খেজুরি থানার ওসি সত্যজিৎ চানক বলেন অভিযোগের ভিত্তিতে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুরো ঘটনাটি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। এই ঘটনার সঙ্গে অন্য কোন ঘটনা জড়িত রয়েছে কি-না তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। ধৃত যুবকের বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও সহবাস সহ ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় মামলা রুজু করেছে খেজুরি থানার পুলিশ।

Related Articles

Back to top button
Close