অফবিটপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

বন্ধ হিন্দমোটর কারখানায় ঝুম্পা, টুম্পারাই এখন কাছের

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: বাড়িতে আমরা কুকুর,বেড়াল পুষে থাকি। তাদের নিয়মিত ভাবে খাবার খেতে দিই। কিন্তু হিন্দমোটর কারখানার ভেতরে ঢুকলে আপনি অবাক হবেন। ঝুম্পা, টুম্পা, রুম্পা কে নিজের হাতে করে রুটি বিস্কুট খাওয়াচ্ছে কারখানায় নিরাপত্তা রক্ষীরা। হিন্দমোটর কারখানার ভেতরে বেশ কিছু এলাকা জুড়ে রয়েছে বিরাট ঘন জঙ্গল। আর সেই জঙ্গলে বসবাস করে একাধিক জীবজন্তু। ওই কারখানার ভেতরে দ্যাখা যায় একাধিক শেয়াল। আর সেই শেয়ালকেই নিজের হাতে করে প্রতিদিন রুটি বিস্কুট খাওয়াচ্ছে কারখানার রক্ষীরা।

প্রতিদিন সকাল বিকেল এই শেয়াল দেখতে ভিড় জমায় এলাকার মানুষ। কারখানার ভেতরে স্কুল থাকায় ছুটির সময় ছাত্র ছাত্রীদের ভিড় চোখে পড়ার মতো। এক স্কুল ছাত্রী প্রীতি সামন্তের কথায়, রোজ স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার সময় এদের দেখতে পাই, খুব ভালো লাগে।

কারখানার নিরাপত্তা কর্মী বিশ্বনাথ মাঝি বলেন, আমি ওদের বন্ধু হয়ে গেছি, যেখানে বন্য প্রাণী দেখলে মানুষ হত্যা করে দেয় সেখানে আমি চেষ্টা করি ওদের দু বেলা দুটো খাওয়াতে। আমার প্রথম প্রথম ভয় লাগতো কিন্তু এখন ওরা আমার বন্ধু হয়ে গেছে, ওদের তিন জনের নাম দিয়েছি ঝুম্পা, টুম্পা, রুম্পা।

ওই কারখানার আরেকজন অবসরপ্রাপ্ত নিরাপত্তা কর্মী নাড়ুগোপাল প্রামানিক বলেন, বন্য প্রাণী বিলুপ্তি হয়ে যাচ্ছে, ওরা খেতে না পেয়ে মারা যাচ্ছে, তাই আমরা চেষ্টা করি ওদের দুটো খেতে দিতে। কেউ বন্য প্রাণী কে মারবেন। আমি যত বছর বাঁচবো ওদের এই ভাবেই দু বেলা দুটো খেতে দিয়ে আসবো।

Related Articles

Back to top button
Close