fbpx
গুরুত্বপূর্ণপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

এবার করোনা আক্রান্ত আসানসোল পুরনিগমের মেয়র জিতেন্দ্র তেওয়ারি

পশ্চিম বর্ধমান জেলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫ হাজার পার, মৃত ৪৪

শুভেন্দু বন্দ্যোপাধ্যায়, আসানসোল: করোনা আক্রান্ত হলেন আসানসোল পুরনিগমের মেয়র জিতেন্দ্র তেওয়ারি । শনিবার সকালে মেয়র নিজেই তার লালারসের পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ আসার কথা জানিয়েছেন। জেলা স্বাস্থ্য দপ্তরও জানিয়েছে, মেয়রের তেমন কোন উপসর্গ নেই। শুক্রবার তার সামান্য জ্বর হয়েছিলো। সেই কারণে তার লালারস পরীক্ষার জন্য নেওয়া হয়েছিলো। এদিন তার রিপোর্ট আসে। তিনি হোম আইসোলেশানে থাকবেন। সেখানেই চিকিৎসক তার চিকিৎসা করবেন। চিকিৎসকের পরামর্শ মতো তিনি ঘরে থেকেই যাবতীয় কাজ করবেন।

জানা গেছে, মেয়রের সঙ্গে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন তার দুই ঘনিষ্ঠ তৃণমূল কংগ্রেসের নেতা অনুপ চট্টরাজ ও গৌরব গুপ্ত। তারাও হোম কোয়ারান্টাইনে আছেন।  করোনার প্রকোপ শুরু হওয়ার একবারে প্রথম দিন থেকে আসানসোলের মেয়র রাস্তায় নেমে কাজ করছেন। নিজের বিধানসভা এলাকা পান্ডবেশ্বরের পাশাপাশি আসানসোল ও দূর্গাপুরের বিভিন্ন জায়গায় গেছেন। গত ৫ মাসেরও বেশি সময়ে তিনি অনেক মানুষের সংস্পর্শে এসেছেন।

       আরও পড়ুন: রবীন্দ্রনাথ ‘বহিরাগত’, মন্তব্যের জন্য ক্ষমা চাইলেন বিশ্বভারতীর উপাচার্য

প্রসঙ্গতঃ, দুদিন আগেই আসানসোলের উষাগ্রামের অগ্নিকন্যা ভবনে দলের জেলা সভাপতি হিসাবে তিনি একটি সাংবাদিক সম্মেলনে দলের জেলা কমিটি ঘোষণা করেছিলেন। সেখানে মেয়রের সঙ্গে ছিলেন দলের চেয়ারম্যান তথা রাজ্যের শ্রম ও আইন মন্ত্রী মলয় ঘটক, আরো তিন নেতা হরেরাম সিং, বিশ্বনাথ পাড়িয়াল ও রুপেশ যাদব। গত কয়েকদিনে মেয়রের কাছে যারা এসেছিলেন, তাদের সবাইকে লালারস পরীক্ষার জন্য বলা হয়েছে। স্বাস্থ্য দপ্তর সূত্রে জানা গেছে, মেয়রের পরিবারের সদস্যদেরও লালারসের নমুনা পরীক্ষার জন্য নেওয়া হবে।

এদিকে, শুক্রবার রাতেই পশ্চিম বর্ধমান জেলায় করোনা আক্রান্তর সংখ্যা ৫ হাজার পার করেছে। জেলা স্বাস্থ্য দপ্তর সূত্রে জানা গেছে, এই মুহূর্তে জেলায় করোনা আক্রান্তর সংখ্যা ৫১০৬ জন। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৩৯৯৬ জন। জেলায় এখন এ্যাক্টিভ রোগীর সংখ্যা ১০৬৬ জন। জেলায় করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ৪৪ জনের।

Related Articles

Back to top button
Close