fbpx
গুরুত্বপূর্ণপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

৬২৪ বছরের ইতিহাসে পড়ল ছেদ, মাহেশে এবার রথে চড়বেন না জগন্নাথ

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: ৬২৪ বছরের ইতিহাসে এই প্রথমবার পড়ল ছেদ। মাহেশে হবে না জগন্নাথের রথযাত্রা। করোনার আবহ আর লকডাউনের কথা মাথায় রেখে শনিবার জেলা প্রশাসনের সঙ্গে আলোচনা করে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে মাহেশের জগন্নাথ ট্রাস্টি বোর্ড। সামাজিকদূরত্ব বিধি মেনে এবার বন্ধ মাহেশের রথযাত্রা। তবে আচার পালন হবে মন্দির চত্বরে। আর সেই সব কিছু সম্প্রচার করার জন্য সংবাদমাধ্যমের কাছে আবেদন জানিয়েছে শ্রীরামপুরের মাহেশের মন্দির কর্তৃপক্ষ। আগেই সিদ্ধান্ত নিয়েছিল পুরী। এবার সেই পথে হেঁটে এবারের মত ধুমধাম করে রথযাত্রার স্থগিত হুগলির মাহেশে। মাহেশের রথযাত্রা এবার ৬২৪ বছরে পড়ছে। আগামী মাসের ৫ তারিখে জগন্নাথ দেবের স্নান যাত্রা রয়েছে। এরপরই ২৩ জুন রথযাত্রা। এ বছরে করোনার আবহে মাহেশের রথযাত্রা কীভাবে হবে তা নিয়ে হুগলির জেলাশাসক ওয়াই রত্নাকর, শ্রীরামপুরে স্থানীয় প্রশাসন, মন্দিরের কমিটি ও সেবাইত এর নিয়ে বৈঠক করেন।

আরও পড়ুন: আদৌ কি গড়াবে বেসরকারি বাসের চাকা, একঘণ্টা অন্তর চলবে ভেসেলও

এই বৈঠকেই সিদ্ধান্ত হয়, স্নান যাত্রা বাইরের বেদিতে নয়, মন্দিরের ভিতরেই করা হবে। ২৩ তারিখের রথযাত্রায় জগন্নাথদেবকে মন্দিরের বাইরে বের করা হবে না। রথের দিন সকাল থেকে মন্দিরে যে নিয়মে পুজো হয় সেটা হবে।এরপরে জগন্নাথদেবের রথে ওঠার কথা থাকলেও বড় রথে তিনি এবারের মত আর উঠবেন না। নারায়ণ-শিলাকেই মন্দির চত্বরের মধ্যে একটি ছোট রথে করে ঘোরানো হবে।এ সবই হবে গুটিকয়েক সেবাইত ভক্তের উপস্থিতিতে।

অর্থাত্‍ বিপুল পরিমাণে জনসমাগম থেকে বিরত থাকবে এবারের মাহেশের রথযাত্রা।সকাল থেকে ভক্তরা যাতে বিভিন্ন উপাচার যাতে দেখতে পান তার জন্য বিভিন্ন স্যোশাল মিডিয়া ও সংবাদ মাধ্যমে আবেদন করেছে মন্দির কমিটি।

Related Articles

Back to top button
Close