fbpx
অসমহেডলাইন

রাজ্য সরকারের নিযুক্তিতে মনিপুরী ভাষাকে উপেক্ষা! লালার সভায় আন্দোলনের হুংকার

নিজস্ব প্রতিনিধি, কাটলিছড়া, ২৬ জুলাই: ভারতীয় সংবিধানের অষ্টম তফসিলে মনিপুরী ভাষা অন্তর্ভুক্ত হলেও রহস্যজনকভাবে অসম সরকারের বিভিন্ন নিযুক্তি, চাকরির বিজ্ঞাপন, পরীক্ষায় মনিপুরী ভাষাকে স্থান দেওয়া হয় নি। এ নিয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে অবিলম্বে এর বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নিতে অসমের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সোনোয়ালের হস্তক্ষেপ চাইলেন হাইলাকান্দির মনিপুরী সমাজ।

রবিবার লালার মাদারীপারে সাউথ হাইলাকান্দি এক্স সার্ভিস ম্যান এসোসিয়েশন সভাপতি ননীবাবু সিংহের পৌরোহিত্যে আয়োজিত এক সভায় রাজ্য সরকারের বিভিন্ন নিযুক্তির বিজ্ঞাপনে মনিপুরী ভাষাকে উপেক্ষার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়ে প্রস্তাব গ্রহণ করা হয়। সভায় অন্যদের মধ্যে তুম্বা সিংহ, সিএইচ চাউবা সিংহ, নীলকুমার সিংহ সহ আরও অনেকে মনিপুরী ভাষাকে উপেক্ষার অভিযোগ তুলে প্রতিবাদে সোচ্চার হন। অবিলম্বে ভারতের সংবিধানের অষ্টম তফসিলের মনিপুরী ভাষাকে অসম সরকারের বিভিন্ন নিযুক্তির বিজ্ঞাপনে অন্তর্ভুক্ত করার দাবি জানান।

অন্যথায় বৃহত্তর গনতান্ত্রিক আন্দোলনের হুংকার দেন তারা। সভায় গৃহীত প্রস্তাবে বলা হয়েছে, হাইলাকান্দি সহ রাজ্যের বিভিন্ন স্থানে মনিপুরী মিডিয়ামের স্কুল রয়েছে। ভারতের সংবিধানের অষ্টম সিডিউলেও মনিপুরী ভাষা অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। কিন্ত বিভিন্ন নিযুক্তি, চাকরির বিজ্ঞাপনে শুধুই বাংলা, অসমিয়া ও বডো ভাষাকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়। যার ফলে মনিপুরী সম্প্রদায়ের যুবক যুবতীরা বঞ্চিত হচ্ছে।

সভায় ননীবাবু সিংহ জানান, রাজ্য সরকার ভারতীয় সংবিধানের অষ্টম তফসিলকে উপেক্ষা করছে। তাই এর প্রতিবাদে ধারাবাহিক আন্দোলন গড়ে তোলার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। প্রথম পর্যায়ে স্মারকপত্র প্রদান করা হবে। এদিনের সভার শেষে কারগিল শহিদদের শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।

Related Articles

Back to top button
Close