fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

পরিযায়ী শ্রমিকরা বিজেপির পাশেই রয়েছেন, বাধা দিচ্ছেন মমতাঅভিযোগ বিজেপি সাংসদের

অভিষেক আচার্য, কল্যাণী:  পরিযায়ী শ্রমিক রাজ্যে ফেরত আসা নিয়ে মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে এক হাত নিলেন রানাঘাট লোকসভার বিজেপি সাংসদ জগন্নাথ সরকার।  বিজেপি সাংসদ বলেন, যে গরু দুধ দেয় তাঁদের জন্যই ভাবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পরিযায়ী শ্রমিকরা বিজেপির পাশেই রয়েছেন। সাম্প্রদায়িক দৃষ্টিতে কাজ করেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি মানুষের জন্য কাজ করেন না। জগন্নাথবাবু অভিযোগ করে বলেন, মুখ্যমন্ত্রী কেরলের মুসলিম তীর্থযাত্রীদের ফিরিয়ে এনেছেন। কিন্তু অন্যান্য পরিযায়ী শ্রমিকদের ফিরিয়ে আনার কাজে বাধা দিচ্ছেন তিনি। সাংসদ আরো অভিযোগ করে বলেন, পরিযায়ী শ্রমিকদের ফিরিয়ে আনার জন্য কেন্দ্র সরকার ৮৫ শতাংশ খরচ বহন করছে। বাকি ১৫ শতাংশ খরচ দিতে ইচ্ছুক নয় মমতার সরকার।

এছাড়া রেশন দুর্নীতি নিয়ে রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে বারবার অভিযোগের তীর ছুঁড়েছে বিরোধীরা। জগন্নাথ সরকার ও সেই একই অভিযোগে নদীয়ার দত্তফুলিয়ার তৃণমূল বিধায়ক সমীর পোদ্দারের বিরুদ্ধে বলেন, ওই তৃণমূল বিধায়কের বাড়ির কাছেই চাল চুরির ঘটনা ঘটেছে। অথচ এখনো পর্যন্ত কাউকেই গ্রেফতার করেনি পুলিশ। উপরন্তু বিনয় সাহা নামে এক বিজেপি কর্মীকে হেনস্থা করেছে প্রশাসন। পাশাপাশি তিনি এও বলেন, জনগণ যেদিন বলবে সেদিন রাজনীতি ছেড়ে দেব। তৃণমূলের কারোর কথায় রাজনীতি ছাড়তে বাধ্য নই আমি।

আরও পড়ুন: বেঙ্গালুরু থেকে বাঁকুড়ায় ফিরলেন রাজ্যের ১২০০ জন বাসিন্দা

করোনায় মৃত্যু সংক্রান্ত তথ্য গোপন নিয়েও মুখ্যমন্ত্রীকে একহাত নিয়েছেন বিজেপি সাংসদ। তিনি বলেন, লাশ চুরি করছে তৃণমূল। কিসের এত গোপনিয়তা? প্রশ্ন তোলেন তিনি। ডেঙ্গু চাপাতে গিয়ে হিরো হয়েছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। করোনা চাপাতে গিয়ে জিরো হবেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রীর উদ্দেশে তিনি বলেন, মমতাকে কবর দেবে জনগণই।

Related Articles

Back to top button
Close