fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

ভাতারে রেশনে ছোলা না পেয়ে পরিযায়ী শ্রমিকদের পথ অবরোধ

দিব্যেন্দু রায়, ভাতার: রেশন থেকে ছোলা না পেয়ে পথ অবরোধ করল ভাতারের বামশোর গ্রামের শতাধিক পরিযায়ী শ্রমিক। তাঁদের অভিযোগ, সরকারিভাবে কুপন দেওয়ার পরেও সেই কুপন অনুযায়ী রেশন থেকে ছোলা দেওয়া হচ্ছে না। তাই ছোলা দেওয়ার দাবিতে রবিবার বামশোর গ্রামে বাদশাহী রোড অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন পরিযায়ী শ্রমিকরা। প্রায় আধ ঘন্টা ধরে অবরোধ চলে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ভাতার থানার পুলিশ এসে অবরোধকারীদের বোঝানোর চেষ্টা করে। তবে নিজেদের দাবিতে অনড় শ্রমিকদের বোঝাতে ব্যার্থ হয় পুলিশ। শেষে ঘটনাস্থলে ভাতার ব্লকের খাদ্য পরিদর্শক গিয়ে শ্রমিকদের বোঝালে অবরোধ ওঠে।

ভাতার ব্লক খাদ্য পরিদর্শক দয়াময় মিশ্র বলেন, ” মে ও জুন মাসের জন্য পরিযায়ী শ্রমিকদের পরিবার পিছু ১০ কেজি চাল ও দুই কেজি করে ছোলা বরাদ্দ ছিল। কিন্তু তারপর আর ছোলা বরাদ্দ হয়নি। তাই সরকারি নির্দেশমতো শুধু চাল দেওয়া হয়েছে।”

আরও পড়ুন: এখনই বিধানসভা ভোট হলে এ রাজ্যে কারা সরকার গড়বে: বিজেপি না তৃণমূল?

রেশন কার্ড বিহীন পরিযায়ী শ্রমিকরা যাতে রেশন সামগ্রী পান তার জন্য কুপন সিস্টেম চালু করেছে রাজ্য সরকার। তাঁদের পরিবার পিছু সরকারিভাবে ১০ কেজি করে চাল ও ২ কেজি করে ছোলা বরাদ্দ করা হয়েছে। বামশোর গ্রামে প্রায় ৯০০ পরিযায়ী শ্রমিক বাড়ি ফিরেছেন বলে প্রশাসন সুত্রে জানা গেছে। প্রথম দফায় যারা কুপন পেয়েছে তাদের চাল ও ছোলা দুইই দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু তারপর যাদের কুপন দেওয়া হয়েছে তাদের চাল দেওয়া হলেও ছোলা দেওয়া হচ্ছে না বলে অভিযোগ স্থানীয় পরিযায়ী শ্রমিকদের।

জানা গেছে, এদিন সকালে বামশোর গ্রামের বেশ কিছু পরিযায়ী শ্রমিক রেশন তুলতে গিয়ে দেখেন তাদের শুধু চাল দেওয়া হচ্ছে৷ এরপর ক্ষুব্ধ পরিযায়ীরা ছোলা দেওয়ার দাবিতে বাদশাহী রোড অবরোধ শুরু করেন৷ অবরোধের জেরে সড়ক পথে ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি হয়। প্রায় আধঘন্টা পর অবরোধ উঠে গেলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।

Related Articles

Back to top button
Close