fbpx
কলকাতাহেডলাইন

প্রবীণ রাজনৈতিক নেতা রেজ্জাকের বাড়িতে হটাৎ মন্ত্রী সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরী

মোকতার হোসেন মন্ডল: প্রবীণ রাজনৈতিক নেতা ও রাজ্যের মন্ত্রী আব্দুর রেজ্জাকের বাড়িতে শনিবার হটাৎ এলেন গ্রন্থাগার মন্ত্রী সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরী। ভোটের আগে এই সাক্ষাৎ বেশ তাৎপর্যপূর্ণ বলে রাজনৈতিক মহল মনে করছে। সূত্রের খবর, দুইজনের কুশল বিনিময়ের পাশাপাশি বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা হয়েছে। কিন্তু হঠাৎ রেজ্জাকের বাড়িতে গেলেন সিদ্দিকুল্লাহ? তাহলে কি নতুন কোনও পরিকল্পনা? সিদ্দিকুল্লাহ অবশ্য বলছেন, ‘‘রেজ্জাক সাহেব বর্ষীয়ান নেতা। তাঁর মতামতের গুরুত্ব রয়েছে।’’

কিন্তু ঠিক বিধানসভা ভোটের আগে রেজ্জাকের মতামত কেন গুরুত্বপূর্ণ জমিয়ত সভাপতির কাছে? তাহলে কি সংগঠনের ওয়ার্কিং কমিটি নতুন কিছু সিদ্ধান্ত দিয়েছে? কেননা, মন্ত্রী আগেই জানিয়েছেন, আগামী বিধানসভা ভোটে লড়াই করবো কিনা জমিয়তের ওয়ার্কিং কমিটি ঠিক করবে।

মঙ্গলকোটে নিজের কেন্দ্র নিয়ে অনেকবার আলোচনা হয়েছে। সম্প্রতি বিজেপির বিরুদ্ধে লড়াই জোরদার হওয়ার প্রেক্ষাপটেই বীরভূমে তৃণমূল জেলা নেতৃত্বের আচরণের প্রতিবাদে সরব হয়েছেন সিদ্দিকুল্লা চৌধুরী। এই অবস্থায় এই বৈঠক নিয়ে একাধিক রাজনৈতিক জল্পনা উঠে আসছে। বিধানসভা ভোটের আগে শাসক দলের কিছু নেতাদের বার্তা দিতেই কি বৈঠক? নাকি অন্য কিছু ভাবছেন জমিয়ত সভাপতি? জল্পনা কিন্তু থাকছে।

 

তবে একটি সূত্র বলছে, মন্ত্রী সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরী বিজেপির বিরুদ্ধে জোরদার আন্দোলন করতে গিয়ে দলীয়ভাবে কেউ যেন বাধা সৃষ্টি করতে না পারে তার জন্য একটা শক্তি তৈরি করছেন। সূত্রের খবর, আব্দুর রেজ্জাক মোল্লা ও মন্ত্রী সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরীর মধ্যে বন্ধুত্বপূর্ণ আলোচনা হয়েছে। বৈঠক প্রসঙ্গে খাদ্য প্রক্রিয়াকরণ মন্ত্রী আব্দুর রেজ্জাক মোল্লাকে ফোনে পাওয়া যায়নি।

Related Articles

Back to top button
Close