fbpx
পশ্চিমবঙ্গশিক্ষা-কর্মজীবনহেডলাইন

উচ্চমাধ্যমিকে জেলায় প্রথম, রাজ্যে পঞ্চম, প্রিয়া গাইনকে আর্থিক সহায়তা সাংসদ জগন্নাথ সরকারের

শ্যামল কান্তি বিশ্বাস: এবছরের উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় নদিয়ায় জেলায় প্রথম এবং রাজ্যে পঞ্চম স্থানাধিকারী প্রিয়া গাইনের পড়াশোনা গ্ৰহণে, আর্থিক দায়ভার নিলেন সাংসদ জগন্নাথ সরকার। কালিনারায়ণপুর আদর্শ বিদ্যালয়ের ছাত্রী প্রিয়া এবছর উচ্চ মাধ্যমিকে জেলায় প্রথম এবং রাজ্যে পঞ্চম স্থান অধিকার করে। প্রিয়ার প্রাপ্ত নম্বর ৪৯৫। অর্থাৎ প্রতি বিষয়ে লেটার মার্কস ৯৯ শতাংশ নম্বর।কালিনায়ণপুরের একটি ভাড়া বাড়িতে থাকে প্রিয়ারা। প্রিয়ার বাবা প্রদীপ গাইন পেশায় দিনমজুর এলাকায় ফুল বিক্রেতা হিসাবে পরিচিত।

মা সুচিত্রা গাইন গৃহকর্ত্রী এবং ভাই দেবাশিস এ বছরই মাধ্যমিক দিয়েছিল এবং দ্বিতীয় বিভাগে উত্তীর্ণ হয়েছে। একমাত্র উপার্জক বাবার সীমিত আয়ে সংসার পরিচালনা সহ ছেলে মেয়ের পড়াশোনা! আকাশ কুসুম ভাবনা হয়ে উঠেছিল প্রদীপবাবুর। ছেলে-মেয়েকে উচ্চশিক্ষায় শিক্ষিত করার লক্ষ্যে শেষ পর্যন্ত হাল ছেড়ে দিয়েছিল প্রদীপবাবু।এরই মধ্যে আজ ১৬ আগস্ট সকালের খুশির খবরে পুরো পরিবেশটাই পাল্টে যায় গাইন পরিবারে। সাংসদ জগন্নাথ সরকার সরাসরি ফোন করেন প্রিয়ার বাবা প্রদীপবাবুকে।

আরও পড়ুন:এলআইসির নিয়োগ সংক্রান্ত মামলায় চাকরিপ্রার্থীরা যাতে বঞ্চিত না হন, দেখতে বলল হাইকোর্ট 

জরুরি তলব পেয়ে মেয়েকে সঙ্গে নিয়ে তৎক্ষণাত হাজির সাংসদ জগন্নাথ সরকারের শান্তিপুরের বাড়িতে। প্রিয়াকে সাদরে কন্যা স্নেহে বরণ করে নিয়ে তার ভর্তি সহ পড়াশোনা বাবদ গর্বিত বাবা প্রদীপবাবুর হাতে নগদ ২৫,০০০(পঁচিশ হাজার টাকা) তুলে দেন সাংসদ জগন্নাথ সরকার। জগন্নাথবাবুর আশ্বাস, জেলার গরীব, দুঃস্থ পরিবারভুক্ত প্রিয়ার উচ্চ শিক্ষা গ্ৰহণের ক্ষেত্রে অর্থ কোনও প্রতিবন্ধকতা হবে না। আগামীতে আরও অর্থ সাহায্যের জন্য তিনি প্রস্তত।

আজকের এই মুহূর্ত ভীষণ ভাবে স্মরণীয় হয়ে থাকবে কালিনারায়ণপরের আর্থিক ভাবে দুঃস্থ গাইন পরিবারের কাছে। ঘটনায় স্বভাবতই খুশি প্রিয়া সহ প্রিয়ার মা,বাবা এবং ভাই। প্রিয়ার ইচ্ছে বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ে ইতিহাসে অনার্স নিয়ে ভর্তি হওয়া। সে মতো পদ্ধতিগত ভাবে অনেকটা এগিয়েও ছিল সে কিন্তু বাদ সাধছিল অর্থ।আজ সেই সমস্যার সমাধান হওয়ায় স্বভাবতই খুশি, প্রিয়া সহ প্রিয়ার পরিবার। সাংসদ জগন্নাথ সরকারের এই আর্থিক সহায়তা দানের ফলে মেধাবী ছাত্রী প্রিয়ার স্বপ্ন, ভবিষ্যতে কলেজে অধ্যাপনা সহ ইতিহাস বিষয়ের উপর গবেষণা করা।

……………………

Related Articles

Back to top button
Close