fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

রেডজোন বসিরহাটে স্বস্তির খবর, করোনা উপসর্গ ৩৫ জনের নেগেটিভ রিপোর্ট

শ‍্যাম বিশ্বাস, উওর ২৪ পরগনা: রেডজোন বসিরহাটে স্বস্তির খবর, প্রাক্তন সেনা কর্মীর স্ত্রী, ছেলে, বৌমা, ২ চিকিৎসকসহ ৩৫ জনের রিপোর্ট নেগেটিভ। প্রাক্তন সেনা কর্মীর করোনা পজিটিভ ধরা পড়ায় তাঁর স্ত্রী, ছেলে, বৌমা ও আরও এক সেনা কর্মী ২ চিকিৎসক সহ ৩৫ জনের করোনা উপসর্গ নিয়ে করেন্টাইনে পাঠানো হয়। তাদের রক্ত ও লালা রস পরীক্ষা জন্য নাইসেডে পাঠানো হয়েছিল। তার বিস্তারিত তথ্য আজ মঙ্গলবার বসিরহাট জেলা হাসপাতালের এসে পৌঁছায়। সেই রিপোর্টে ৩৫ জনেরই নেগেটিভ। তারপর স্বস্তির হাওয়া বসিরহাট জুড়ে।

উল্লেখ্য ,বসিরহাট জিরাকপুর গ্রামে প্রাক্তন সেনাকর্মী করোনা পজিটিভ নিয়ে কলকাতা আলিপুরে কমান্ডো হসপিটালে ভর্তি হন। বাড়ির বাকি লোকজন বসিরহাট কর্মতীর্থ কোয়ারান্টিন হসপিটালে ভর্তি। এরপরে ওই প্রাক্তন সেনা কর্মীর সংস্পর্শে এসেছিল আরও এক প্রাক্তন সেনা কর্মী সহ গাড়ী চালক। তারা বসিরহাটে কর্মতীর্থ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। পাশাপাশি করোনা পজিটিভ সেনাকর্মী যে চিকিৎসকের কাছে দেখাতে গিয়েছিল দুই চিকিৎসকের সংস্পর্শে পাশাপাশি বেশ কিছু ওষুধের দোকানে গিয়েছিল। ইতিমধ্যে স্বাস্থ্য দপ্তর ও পুলিশ সেই দোকান গুলোকে সিল করেছে। এদের সংস্পর্শে আসা বসিরহাটের বিভিন্ন জায়গা থেকে ৩৫ জনকে হোম কোয়ারান্টিনে রাখার নির্দেশ দিয়েছিলেন।

আরও পড়ুন: পরিযায়ী শ্রমিক প্রত্যাবর্তনে আশা জাগলেও আশঙ্কা বাড়ছে

ইতিমধ্যে সেনাকর্মী গ্রাম লাগোয়া বসিরহাট পৌরসভার ২২নম্বর ওয়ার্ড এলাকাজুড়ে হটস্পট ঘোষণা করেছে মহকুমার শাসক। পাশাপাশি ওই এলাকায় ব্যারিকেড দেওয়া হয়েছে, স্যানিটাইজার করা হচ্ছে। প্রশাসনের উদ্যোগে মাইকিং প্রচার চালানো হচ্ছে। এলাকা লাগোয়া মাছের বাজার ইতিমধ্যে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে অনির্দিষ্টকালের জন্য। পাশাপাশি ঘর থেকে বেরোতে বারণ করছে পুলিশ। সবমিলিয়ে করোনা থাবা এবার যে বসিরহাটে জাকিয়ে বসেছে তা বলা বাহুল্য। ইতিমধ্যে বসিরহাট রেড জোন আওতায় রয়েছে। এই ৩৫ জনের নেগেটিভ রিপোর্ট আসার পর, বসিরহাট মহকুমা জুড়ে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলতে শুরু করেছে সাধারণ মানুষ।

Related Articles

Back to top button
Close