fbpx
গুরুত্বপূর্ণদেশহেডলাইন

কথা রাখল নীতীশ! বিনামূল্যেই কোভিড টিকা পাবে বিহারবাসী

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: কথা রাখল নীতীশ সরকার! সরকারি চাকরি, করোনার টিকা। এই দুই অস্ত্র সামনে রেখেই বিহারে বিধানসভা নির্বাচনের লড়াইয়ে নেমেছিল ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক অ্যালায়েন্স তথা এনডিএ। প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল নীতীশের সরকার ফের ক্ষমতায় আসলে একদিকে যেমন বিপুল কর্মসংস্থান হবে, তেমনি বিহারবাসীকে বিনামূল্যে করোনার টিকা দেওয়া হবে। এই দুই প্রতিশ্রুতিই রক্ষা করতে এবার উঠেপড়ে লাগল নীতিশ কুমারের সরকার।

বিধানসভা নির্বাচনের আগে প্রতিশ্রুতি ছিল, এনডিএ জোট ক্ষমতায় এলে বিহারবাসীকে বিনামূল্যে ভ্যাকসিন বিতরণ করা হবে। মন্ত্রিসভার বৈঠকে সেই প্রতিশ্রুতিতেই সিলমোহর দিল নীতীশ কুমার নেতৃত্বাধীন সরকার। গত মাসেই পরিষদীয় বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় রাজ্যের সব মানুষকে বিনামূল্যে টিকা দেওয়া হবে। শুধু তাই নয়, সরকারি এবং বেসরকারি মিলিয়ে ২০ লক্ষ কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা হবে বলেও ওই বৈঠকে প্রস্তাব পাশ করিয়ে নেওয়া হয়। রাজ্যের প্রতিটি প্রান্তে ভ্যাকসিন পৌঁছে দেওয়ার প্রস্ততিও চূড়ান্ত পর্যায়ে বলে জানানো হয়েছে। বাকি থাকা প্রস্তুতিও দ্রুত শেষ করার নির্দেশ দিয়েছেন নীতীশ কুমার। উল্লেখ্য, অসম, তামিলনাডু, মধ্যপ্রদেশ, কেরল সরকারও বিনামূল্যে কোভিড ভ্যাকসিন বিলির প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। তবে সেই প্রতিশ্রুতিতে সরকারি সিলমোহর পড়ল প্রথম বিহারেই ।

উল্লেখ্য, তেলেঙ্গানায়ও জানুয়ারি থেকে টিকাকরণ শুরু হওয়ার পথে। এ প্রসঙ্গে বিহারের উপমুখ্যমন্ত্রী তারকিশোর প্রসাদ জানান, “বিহারের প্রতিটি মানুষ বিনামূল্যে কোভিড ভ্যাকসিন পাবে, বিজেপি তথা এনডিএ সরকারের প্রতিশ্রুতি ছিল। এটা বিহারবাসীর জন্য সবচেয়ে বড় উপহার।” তিনি আরও বলেন, “এ রাজ্যের সবচেয়ে বড় শক্তি হল মানবসম্পদ। তাই তাঁদের করোনা থেকে সুরক্ষা দেওয়া সবচেয়ে জরুরি।” মন্ত্রিসভার এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন বিহারের প্রাক্তন উপমুখ্যমন্ত্রী তথা রাজ্যসভার সদস্য সুশীল মোদি। তিনি বলেন, “বিহারবাসীর একাংশের মাত্র কোভিড ভ্যাকসিন কেনার ক্ষমতা রয়েছে। সে কথা মাথায় রেখেই বিহারের প্রতিটি মানুষকে বিনামূল্যে টিকা দেওয়ার ভাবনাচিন্তা করেছিল এনডিএ জোট। তা এবার বাস্তবায়িত হবে।”

করোনার টিকা চলে এলে তা বিনামূল্যেই দেওয়া হবে বিহারবাসীকে, মন্ত্রিসভায় এমন প্রস্তাবই পাশ হয়েছে। সেই সঙ্গে ২০ লাখ সরকারি ও বেসরকারি চাকরির প্রস্তাব পাশ হয়েছে বলে খবর। সরকারি তরফে জানানো হয়েছে, মহিলাদের স্বনির্ভর করে তোলার জন্য বিভিন্ন পরিকল্পনা করেছে সরকার। অবিবাহিত গ্র্যাজুয়েট মহিলাদের ৫০ হাজার টাকার অনুদান দেওয়া হবে, স্কুল পাশ করেছে যারা, তাদের ২৫ হাজার টাকার অনুদান দেওয়া হবে সরকারের তরফে। একটি প্রকল্প চালু করা হবে যেখানে মহিলা নতুন ব্যবসা শুরু করার জন্য সুদ ছাড়াই ৫ লক্ষ টাকা অবধি ঋণ পাবেন।

আরও পড়ুন: মোদি-হাসিনার বৈঠকে স্বাক্ষর হবে ৪ চুক্তি

ভোটের আগে বিহারে নির্বাচনী ইস্তাহারে দাবি করা হয়েছিল, যেদিনই ভারতে কোভিড ১৯ ভ্যাকসিন বন্টনের জন্য তৈরি হয়ে যাবে বিহারের প্রত্যেক মানুষ বিনামূল্যে সেই ভ্যাকসিন পাবেন। বিজেপির ঘোষণার পরেই আম আদমি পার্টির প্রধান তথা দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল প্রশ্ন তুলেছিলেন, অ-বিজেপি শাসিত রাজ্যগুলিতে তাহলে কী হবে? যাঁরা বিজেপিকে ভোট দেবেন না তাঁরা কি কোভিড ভ্যাকসিন পাবেন না? বিজেপির আইটি সেলের তরফে অমিত মালব্য জানান, কেন্দ্রের তরফে রাজ্যগুলিকে খুবই কম মূল্যে ভ্যাকসিন দেওয়া হবে। সেটা মানুষকে বিনামূল্যে দেওয়া হবে, না টাকা নেওয়া হবে, তার সিদ্ধান্ত নেবে রাজ্য সরকার।

নীতীশ কুমার সরকার জানিয়েছে, আগামী বছর থেকেই করোনার টিকা দেওয়া শুরু হতে পারে দেশে। রাজ্যগুলিতে টিকা সংরক্ষণ ও বন্টনের গাইডলাইন তৈরি হচ্ছে। টিকা চলে এলে বিহারের প্রতিজনকে তা বিনামূল্যেই দেওয়া হবে।বিরোধীদের অভিযোগ ছিল, টিকাকরণ প্রক্রিয়া নিয়েও রাজনীতি করছে বিজেপি। এই ঘোষণায় সিলমোহর পড়ার পর তাঁদের প্রশ্ন, বিহার বিজেপিকে জিতিয়েছে বলে বিনমূল্য কোভিড ভ্যাকসিন পাচ্ছে, দেশে বাকি রাজ্য যেখানে বিজেপি ক্ষমতায় নেই, সেখানে কী হবে?

Related Articles

Back to top button
Close