fbpx
গুরুত্বপূর্ণদেশহেডলাইন

করোনা রুখতে এগিয়ে রয়েছে মাত্র তিনটি প্রতিষেধক  

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: করোনা প্রতিষেধক আবিষ্কারের দৌড়ে রয়েছে অনেকেই। কিন্তু গোটা বিশ্বে মাত্র তিনটি প্রতিষেধক এগিয়ে রয়েছে। আমন্তাই জানাল কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক। এগুলি তৈরি করছে আমেরিকা, ইংল্যান্ডের অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় এবং চিন। এমনই জানিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক।

স্বাস্থ্য মন্ত্রকের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে যে, ২৪টি করোনা প্রতিষেধক এই মুহূর্তে নানা ভাবে মানব দেহের ওপর পরীক্ষা করা হচ্ছে। এর আগের ধাপে ১৪১টি টিকা বিভিন্ন জীবজন্তুর ওপর পরীক্ষা করেছে করোনা প্রতিষেধকের। কিন্তু চূড়ান্ত ধাপে এখনও পর্যন্ত যেতে পেরেছে মাত্র তিনটি প্রতিষেধক।  এদের মধ্যে ইংল্যান্ডের অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষেধকের বরাত নিয়েছে ভারতের সিরাম ইন্সটিটিউট। আর ভারতীয় কোম্পানি ভাওত বায়টেক নিজেদের তৈরি একটি প্রতিষেধক বাজারে আনছে। সেটিও অনেকটাই এগিয়ে রয়েছে বলে জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক।

[আরও পড়ুন- চেন্নাইয়ের তিনটি মেট্রো স্টেশনের নাম বদল হচ্ছে]

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের পক্ষ থেকে স্পষ্ট করে বলে দেওয়া হয়েছে যে, ভারত যেহেতু টিকা তৈরির আন্তর্জাতিক হাব, তাই করোনা প্রতিষেধক তৈরিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেবে ভারত। আর প্রতিষেধক বিক্রি করা যাবে ২ ভাবে। প্রথমত, আন্তর্জাতিক এজেন্সিগুলির এই প্রতিষেধক তৈরি ও সরবরাহের জন্য একটি ব্যবস্থা তৈরি করা উচিত। দ্বিতীয়ত, যে সব ব্যক্তির ওপর এই প্রতিষেধক কাজ করেছে, তাঁদের সঙ্গে কথাবার্তা চালাতে পারে দেশগুলি।

জানা গিয়েছে যে, তবে ভারত এখনও প্রচুর সংখ্যায় প্রতিষেধক তৈরির জন্য কোনও ওষুধ সংস্থার সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়নি। এ বিষয়ে বেশ কয়েকটি কোম্পানির সঙ্গে কথা চলছে।

 

Related Articles

Back to top button
Close