fbpx
দেশহেডলাইন

বিরোধী জোট বেছে নিল যশবন্ত সিনহাকেই, এনডিএ জোটের প্রার্থী নির্বাচিত হলেন দ্রৌপদী মুর্মু

যুগশঙ্খ, ওয়েবডেস্ক: ভারতের রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে বিরোধী জোটের সর্বসম্মত প্রার্থী হিসেবে তৃণমূল কংগ্রেসের নেতা যশবন্ত সিনহাকে নামকে বেছে নেওয়া হয়। ১৮ দলের বৈঠকের মাধ্যমে যশবন্ত সিনহার নাম বেছে নেওয়া হয়। এদিকে বিজেপির নেতৃত্বাধীন এনডিএ জোটের প্রার্থী হয়েছেন আদিবাসী নেত্রী দ্রৌপদী মুর্মু। ওড়িশা রাজ্যের প্রাক্তন এই মন্ত্রী ঝাড়খণ্ডের রাজ্যপাল হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেছেন মঙ্গলবার বৈঠকের পর বিজেপির সভাপতি জেপি নাড্ডা তফসিলি জনজাতি সম্প্রদায়ের নেত্রী দ্রৌপদীর নাম ঘোষণা করেন।

নাড্ডা জানিয়েছেন, ‘এনডিএ শরিকদের সঙ্গে আলোচনায় সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে ২০ জনের নাম এসেছিল। শেষ পর্যন্ত সর্বসম্মতভাবে দ্রৌপদী মুর্মুর নাম চূড়ান্ত হয়েছে। ’ দিল্লিতে এনসিপির প্রধান শারদ পাওয়ারের বাড়িতে ১৮ দলের বৈঠকে প্রাক্তন বিজেপি নেতা যশবন্তের নাম চূড়ান্ত করা হয়। বৈঠকে ছিলেন না পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাই তৃণমূলের প্রতিনিধিত্ব করেন দলের সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়।

বৈঠকের পর এক সংবাদ সম্মেলনে শারদ পাওয়ার বলেন, ‘বিজেপির বিরুদ্ধে ধর্মনিরপেক্ষ শিবিরের সর্বসম্মত প্রার্থী হবেন যশবন্ত। ’

পরে যশবন্ত নিজে টুইট করে তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান। এবং দল থেকে অব্যাহতি চান। তৃণমূলে মমতাজি আমাকে যে সম্মান ও প্রতিপত্তি দিয়েছেন তার জন্য আমি কৃতজ্ঞ। এখন একটা সময় এসেছে যখন বৃহত্তর জাতীয় স্বার্থে আমাকে দল থেকে সরে এসে বৃহত্তর বিরোধী ঐক্যের জন্য কাজ করতে হবে। আমি নিশ্চিত যে সে পদক্ষেপটি অনুমোদন করবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।’

আগামী ১৮ জুলাই রাষ্ট্রপতি নির্বাচন। রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের ধারণা, দেশের প্রথম আদিবাসী রাষ্ট্রপতি হতে চলেছেন আদিবাসী নেত্রী দ্রৌপদী।

Related Articles

Back to top button
Close