fbpx
কলকাতাগুরুত্বপূর্ণপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

পরেশ পালকেও শৃঙ্খলা ভঙ্গের নোটিশ!

অভিষেক গঙ্গোপাধ্যায়, কলকাতা: রাজ্যের পুরমন্ত্রীর নামে সমালোচনা করে দলের রোষের মুখে পড়েছিলেন ক্রেতা সুরক্ষা মন্ত্রী। এবার সেই একই ভাবে ক্রেতা সুরক্ষা মন্ত্রী সাধন পান্ডের নামে বিস্ফোরক মন্তব্য করে দলের রোষানলে বেলেঘাটার বিধায়ক পরেশ পাল। সূত্রের খবর তাঁকেও শোকজ করা হয়েছে। শুক্রবার দলের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায় সংবাদ মাধ্যমের কাছে সে কথা স্বীকারও করে নেন। এ বিষয়ে ইতিমধ্যেই উত্তর কলকাতা জেলা তৃণমূল সভাপতি তথা সাংসদ সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে কথাও হয়েছে মহাসচিবের।

আমফান পরবর্তী পরিস্থিতি সামলাতে কলকাতা পুরসভার ব্যর্থতা তুলে ধরে পুরসভার প্রশাসক ফিরহাদ হাকিমের সমালোচনা করেন সাধন বাবু। জানিয়েছিলেন, “ফিরহাদ হাকিম প্রশাসক হিসেবে বসেছেন ঠিকই কিন্তু পরিকল্পনার অভাব ছিল। কোনদিনই কারো সঙ্গে তিনি আলোচনা করেননি।”

এরপরেই গত বৃহস্পতিবার তৃণমূল বিধায়ক পরেশ পাল সাংবাদিক বৈঠক করে পাল্টা রাজ্যের মন্ত্রী সাধন পান্ডে কে তুলোধোনা করেন। সেখানে পরেশ বাবু জানান, “ওর (সাধন পান্ডে) মত লোককে দল থেকে বের করে দিলে আমরা সবাই ভালো করে দলটা করতে পারব।”
ক্রেতা সুরক্ষা মন্ত্রীর বিরুদ্ধে একের পর এক বিস্ফোরক অভিযোগ করে পরেশ পাল বলেন, “তৃণমূল দলের ক্ষেত্রে নয় উনি যখন কংগ্রেসে ছিলেন তখন উনি অনেক নেতৃত্বের পেছনে এভাবেই কথা বলেছেন। তাই লকডাউন উঠলে ১০-১৫ হাজার কর্মী নিয়ে আমরা ওনার বিরুদ্ধে রাস্তায় নামব এবং দলকে বোঝানোর চেষ্টা করব এ ধরনের লোককে দল থেকে বের করে দেওয়ার জন্য।”

তার পরিপ্রেক্ষিতেই এবার ফের পরেশ পালকে শো কজ করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে চলেছে তৃণমূল। তাদের মতে সাধন পান্ডে যেভাবে প্রকাশ্যে পুরসভার ব্যর্থতা নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছিলেন সেই একইভাবে পরেশ পাল ও রাজ্যের মন্ত্রিসভার গুরুত্বপূর্ণ মন্ত্রীর বিরুদ্ধে তোপ দাগেন। তাই দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে শোকজ করা হতে পারে পরেশ পাল।

তবে রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের মতে শোকজ করেই এই সমস্যার মীমাংসা হবে না। সাধন ও পরেশের ডুয়েল কোন নতুন বিষয় নয়। একাধিকবার এই দুই বিধায়কের গোষ্ঠী কোন্দল সামনে এসেছে। বারে বারে দল ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করেছে। এভাবে দলের অন্দরের ফাটল প্রকাশ্যে আসায় যথেষ্ট অস্বস্তিতে রয়েছে তৃণমূল। তাই ড্যামেজ কন্ট্রোলে প্রশান্ত কিশোরের নির্দেশেই এবার পরেশকেও শোকজ করা হলো। এ বিষয়ে পার্থ চট্টোপাধ্যায় জানিয়েছেন, “সাধন পান্ডে যেমন প্রকাশ্যে কথা বলে ভুল করেছেন তেমনই সাংবাদিক বৈঠক করে পরেশ পাল ও ভুল করেছেন তাই কাউকেই রেয়াত করা হবে না দু’জনকেই দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে শো কজ করা হবে”।

Related Articles

Back to top button
Close