fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

চন্দ্রকোনার লক্ষ্মীপুরের চৌধুরী পরিবারের এক হাজার বছরের পুরনো কালীপুজো ঘিরে প্রস্তুতি তুঙ্গে

সুদর্শন বেরা, পশ্চিম মেদিনীপুর: চন্দ্রকোনা টাউন থানার লক্ষ্মীপুর গ্রামের চৌধুরী পরিবারের কালীপুজো এক হাজার বছরের পুরনো। সেই কালীপুজোর প্রস্তুতি চলছে জোরকদমে। পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার চন্দ্রকোনা টাউন থানার অধীন

চন্দ্রকোনা-১ ব্লকের লক্ষ্মীপুর গ্রামে চৌধুরী পরিবারের কালীপুজো হাজার বছরের পুরনো। এখানকার প্রতিমার মাহাত্ম্য ছড়িয়ে পড়েছে চারিদিকে। এই পুজোর ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপটে জানা যায়, মা কালীর স্বপ্নাদেশ পেয়ে পুকুর থেকে পিতলের কলসি তুলে নিয়ে এসে চৌধুরী পরিবারের পূর্বপুরুষরা বাড়িতে ঘট স্থাপন করে পুজো শুরু করেন। বেশ কয়েক বছর ধরে এভাবে ‘ঘটে’ মা কালীপুজো পেয়ে এসেছেন।
এরপর ওই পরিবারের বংশধর কল্যাণ চৌধুরী মায়ের স্বপ্নাদেশ পেয়ে কাশী থেকে কালী মূর্তি নিয়ে আসেন পায়ে হেঁটে। তারপর হাজার বছরধরে কালী পূজিত হয়ে আসছেন লক্ষ্মীপুর গ্রামে। কথিত আছে প্রতিমা আনতে যাওয়ার আগে তিনি বলেছিলেন, বাড়িতে যা খান তা দিয়েই দেবীকে ভোগ নিবেদন করবেন। সেই থেকে প্রতিদিন দেবীকে দেওয়া হয় মুড়কি ,লুচি,মিষ্টি। মন্দিরেই তৈরি হয় সেসব। প্রতি অমাবস্যায় বলি হয়।
প্রতিদিন নিত্য পুজোর পাশাপাশি প্রতি অমাবস্যাতে বিশেষ পুজো হয়। কালীপুজোর দিনে প্রচুর ভক্তের সমাগম হয়। দক্ষিণা কালীর এই কালীরপুজোর দিন ৫০ থেকে ৬০ ছাগল বলি দেওয়া হয়। বলির রক্তে ভেসে যায় মন্দিরের চাথাল। প্রাচীন এই পুজোকে ঘিরে মানুষের উৎসাহ-উদ্দীপনা প্রচুর। নরনারায়ণ সেবা হয়। পাশাপাশি ১০ / ১২টি গ্রামের মানুষ আসেন পুজো দেখতে ও প্রসাদ খেতে।

আরও পড়ুন: কংগ্রেসের ফ্লপ শো-এর জন্যই স্বপ্ন হাতছাড়া হল তেজস্বীর

পুজোর দায়িত্বে থাকা শঙ্কর প্রসাদ চৌধুরী জানান, কালীপুজোর দিন হিন্দু-মুসলিমের সব সম্প্রদায়ের মানুষের মিলনমেলা তৈরি হয়। মায়ের কাছে মানত করে ভক্তদের আশা পূর্ণ হয়। ২০১৮ সালে দেড়কোটি টাকা ব্যয়ে দক্ষিণেশ্বর মন্দিরের আদলে তৈরি হয় মন্দির। রয়েছে নাট মন্দির, ভোগ ঘর। কল্যাণ চৌধুরীর বংশধর ও সেবায়িত বাপ্পাদিত্য চৌধুরী মন্দির ও পরিবারের বাকি বংশধররা মন্দিরের খরচ বহন করেন।
মায়ের মন্দিরের কাছেই আছে নাটমন্দির। নাটমন্দিরে সংগীতের মূর্ছনা মনকে অন্য জগতে নিয়ে যায়, মানসিক প্রশান্তি আনে।
এবছর করোনাবিধি মেনেই পুজো হবে।তাই অনেক কিছুই কাটছাঁট করা হচ্ছে বলে তাঁরা জানিয়েছেন। তাই জোরকদমে চলছে কালীপুজোর প্রস্তুতি।

Related Articles

Back to top button
Close