fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

তারকেশ্বরে রমজান পালনে নতুন নির্দেশিকা

পার্থ সামন্ত, তারকেশ্বর: প্রবিত্র রমজানে মসজিদে পাঁচ ওয়াক্তের নামাজে ইমাম, মুয়াজ্জিন সহ আরো তিন জন ছাড়া কেউ থাকতে পারবেন না। মাত্র ৫ জন মসজিদের নামাজ পড়তে পারবেন। প্রত্যেককে  মাস্ক বা অন্য কোন কাপড় দিয়ে নাক মুখ ঢাকা দিয়ে নামাজ পড়তে হবে। মসজিদেও মানতে হবে সোশ্যাল ডিস্টেন্স।

কোভিড-১৯ অতিমারীর দাপটের কারণে রমজান পালন করার ব্যাপারে কতি পয় বিধি পালন করার অনুরোধ করেছেন পশ্চিমবঙ্গ সরকারের পক্ষে মাদ্রাসা বিষয়ক ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিষয়ক দপ্তরের সচিব এবং মুখ্য নির্বাহী আধিকারিক, ওয়াকফ বোর্ড যার অনুলিপি প্রতিটি পঞ্চায়েতে ই-মেইল-এর মাধ্যমে পাঠানো হয়েছে। এই দুটি এলাকার প্রতিটি মসজিদের ইমামের কাছে পৌঁছে দিতে হবে।

এছাড়াও পাঠানো হয়েছে অনুরোধ বাচক একটি অডিও ক্লিপিং, যেটি প্রতিটি পঞ্চায়েতের উপযুক্ত এলাকায় মাইকিং করা একান্ত প্রয়োজন যার মাধ্যমে রমজান পালনকারী সমস্ত নাগরিকদের মধ্যে যথোপযুক্ত সচেতনতা সৃষ্টি করা সম্ভব।

হুগলী জেলার তারকেশ্বরে প্রচার হয়েছে সেই মতো। স্থানীয় বাগবাড়ী মসজিদ কমিটির সেক্রেটারি আবুল হোসেন সাহেব বললেন এই কথা। তিনি বলেন আমরা করোনা নিয়ে সরকারি নির্দেশ পালন করছি। মসজিদে জমায়েত বন্ধ রেখেছি। করোনা সংক্রমণ আটকাতে এলাকাবাসীদের উদ্দেশ্যে মসজিদের মাইকে প্রচার করছি। আমরা চাই সবই এই সময় বাড়িতে থাকুন। বাড়িতে বসেই মাহে রমজানের নামাজ আদায় করুন।

স্থানীয় ব্যবসায়ী হাজী হাবিল উদ্দিন বললেন সরকারি নিয়মেই আমরা চলব। করোনা আটকাতে সরকারি নির্দেশ মানা খুব দরকারি। সবাই বাড়িতে বসে রমজানের নামাজ পড়ুক সকলে সুস্থ থাকুক। কোন ইফতার পার্টি যে এবার হবে না সেটা জানালেন হাজী সাহেব। কথা হলো সাদ্দাম সরকারের সাথে। তিনি বললেন আমি তো নিয়ম মানবো আর আমার ছাত্র ছাত্রীদের ও বলেছি তোরা সবাই সরকারি নিয়ম মেনে চলবি, আর বাড়িও লোকজনকেও নিয়ম মানতে বলবি। তিনি জানান সরকারি নিয়ম মেনে আমাদের পাড়ার সকলে বাড়িতেই রমজানের নামাজ পড়বে। তবেই আমরা করোনা আটকাতে পারবো

রমজান হলো ইসলামি বছরের নবম মাস। রমজান মাস হলো ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের কাছে পবিত্রতম মাস। এই মাসে ইসলাম ধর্মাবলম্বীরা ভোর থেকে সুর্যাস্তের পর পর্যন্ত সকল প্রকার খাওয়া দাওয়া বন্ধ রাখেন। যাকে আমরা রোযা রাখা বলি। আর সন্ধ্যার পর মসজিদে সকলে মিলে তারাবির নামাজ আদায় করেন।

করোনা আটকাতে তারকেশ্বরের ইসলাম ধর্মাবলম্বীরা চাইছেন সরকারি নির্দেশ মতো বাড়িতেই নামাজ পড়তে। তারকেশ্বর পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি ফিরদৌস পারভীন রোজা রাখছেন। তিনি জানান তারকেশ্বরের সব মসজিদের ইমাম সাহেবরা সরকারি নিয়ম মেনেই রমজান পালন করবেন বলে জানিয়েছেন। কোন মসজিদেই জমায়েত হবে না। তিনি আবেদন রাখলেন সকলে বাড়িতে থাকুন,  করোনা সংক্রান্ত সরকারি নির্দেশ মেনে চলুন।, তবেই আমরা করোনা দূর করতে পারবো।

Related Articles

Back to top button
Close