fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

ভিখারি থেকে সেলিব্রিটি রানাঘাটের রানু মণ্ডল আজ অনেকেরই ত্রাতা

শ্যামল কান্তি বিশ্বাস, রানাঘাট: ভিখারি থেকে সেলিব্রিটি! না কোন রূপকথার গল্প নয়, এ এক বাস্তব প্রেক্ষাপটে উপেক্ষিতা নারীর করুণ কাহিনী।এই তো সেদিনের কথা, রানাঘাট প্লাটফর্মে ক্ষুধার জ্বালায় খাবারের সন্ধানে ঘাত-প্রতিঘাতে জীবনযুদ্ধে সামিল হওয়া জরাজীর্ণ,শির্নোকায়, শ্যামবর্ণা, যৌবনের মধ্যগগনে অবতীর্ন উপেক্ষিতা নারী রানু মণ্ডলের কথা বলছি।

 

চরাই-উৎরাই এর ব্যাবধানে ইতিমধ্যে রানাঘাট চূর্ণী নদী দিয়ে অনেক জল বয়ে গেছে। দাঁতে দাঁত কামড়ে জীবন যুদ্ধে বেঁচে থাকার সংকল্পে রানাঘাট প্লাটফর্মে গান গেয়ে ভিক্ষাবৃত্তির সময়ে কিংবদন্তি সঙ্গীতশিল্পী লতাজীর একটি গান গাওয়ার সুবাদে কোন এক সুভাকাঙ্খীর(জনৈক অতনু ভট্টাচার্য) নজরে পড়ে যান এই রানু মণ্ডল। ভদ্রলোক গানটি তৎক্ষণাৎ ফেসবুকে পোস্ট করেন। হৃদয় স্পর্শী এই গান দ্রুত ভাইরাল হয়ে যায়; দেশের এপ্রান্ত থেকে ওপ্রান্ত আবাল বৃদ্ধ বনিতা থেকে সুরকার, গীতিকার, বুদ্ধিজীবী সহ সর্বস্তরের মানুষের প্রাণ কেড়ে নেয় এই কন্ঠস্বর।নজরে পড়ে যায় সুরকার হিমেশ রেসমিয়ার, ডাক আসে বম্বে থেকে। ভাগ্যের চাকা ঘুরে যায় এক নিমিষে।

 

 

বম্বে গিয়ে গানের রেকর্ডিং,ও গান সুপারহিট এবং রাতিরাতি সেলিব্রিটি। স্টার রানু মন্ডল, অর্থ, গাড়ি,প্রচুর সম্মান সহ সারা দেশের এপ্রান্ত থেকে ওপ্রান্তে অনুষ্ঠান করবার সুযোগ! এ যেন সাত সমুদ্র তের নদী পার করে ঘরে ফের ফেরার পালা। বাস্তবে হোল ও তাই কিন্তু হঠাৎ করোনা আবহে সব ছন্দপতন!

 

 

এখন রানাঘাটে নিজের বাড়িতেই গৃহবন্দি কিন্তু অবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে মনটা পড়ে আছে রানাঘাট প্লাটফর্মের আশ্রয়হীন, অনাহারে, অর্ধাহারে অবস্থানকারী সেই মানুষ গুলির প্রতি। কারণ, তিনি ও কয়েকমাস আগে পর্যন্ত ঐ পরিবেশেই বেড়ে উঠেছিল।ফলে অবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে এখন সামর্থ্য হয়েছেঐ মানুষ জনদের পাশে দাঁড়ানোর।তাই অপেক্ষা না করে দ্রুত সিদ্ধান্ত, কিছু একটা করতেই হবে ঐ সমস্ত মানুষজনদের জন্য। প্রতিবেশী কয়েকজন যুবককে সঙ্গে নিয়ে ঝাঁপিয়ে পড়ছে এলাকার অতিদরিদ্র মানুষজনদের সাহায্যার্থে। প্রতিদিন বাড়ি থেকেই প্যাকেটজাত খাদ্য সামগ্রী বিতরনের কর্মসূচি হাতে নিয়েছে রানু মন্ডল। কথা হচ্ছিল তার বাড়িতে বসেই। রানু মন্ডল যে কথা বার বার বলতে চাইলেন তা হল,ভাগ্যের এই পরিবর্তনে ঈশ্বর কে বারবার ধন্যবাদ জানিয়েছেন তিনি। রানু মণ্ডল স্বীকার করেন, সর্ব শক্তিমান অর্থাৎ ঈশ্বরের অসীম করুণা ছাড়া জীবনে এত দ্রুত এই ধরনের পরিবর্তন কোন অবস্থাতেই সম্ভব নয়।এই সংবাদ লেখা পর্যন্ত রানু মন্ডলের ভিউয়ার সংখ্যা এককোটি ছুঁইছুঁই।

Related Articles

Back to top button
Close