fbpx
দেশহেডলাইন

জলের তলায় সেতু, গর্ভবতী মহিলাকে কাঁধে করে হাসপাতালে নিয়ে গেলেন আত্মীয়রা

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: মাত্র ৩ দিন আগে ছত্তিশগড়েের বিজাপুর জেলায় এক গর্ভবতী মহিলাকে বড় ডেকচিতে চাপিয়ে হাসপাতালে নিয়ে যেতে হয়েছিল। তবে শেষ পর্যন্ত ওই মহিলার গর্ভস্থ সন্তানকে বাঁচানো সম্ভব হয়নি। এবারও সেই ধরনের ঘটনা ঘটল। তবে এবার ঘটনা স্থল তেলেঙ্গানা। গত কয়েক দিনের একটানা প্রবল বৃষ্টিতে ভেসে গিয়েছে রাস্তাঘাট। পুকুর নদী-খাল-বিল মিলেমিশে একাকার। এমন সময় এক গর্ভবতী মহিলার শরীর খারাপ হয়। রাস্তাঘাট জলের তলায় চলে যাওয়ায় কোন অ্যাম্বুল্যান্স বা কোনও গাড়িই ওই মহিলাকে হাসপাতালে নিয়ে যেতে অস্বীকার করে। এর পর পরিবারের মানুষ তাকে কাঁধে করে হাসপাতালে নিয়ে যান। এই ঘটনাটি ঘটেছে তেলঙ্গানার কোথাগুদেম জেলার নরসপুরম টান্দা গ্রামে।

ওই মহিলার পরিবারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, শুক্রবার সকালে ওই মহিলার হঠাৎই পেটে প্রবল যন্ত্রণা শুরু হয়। সঙ্গে সঙ্গেই তাকে হাসপাতালে পাঠানোর তোড়জোড় শুরু হলেও রাস্তা না থাকায় কোনো অ্যাম্বুল্যান্স পাওয়া যায়নি। তাই ওই মহিলার স্বামী তাকে মোটর বাইকের চাপিয়ে হাসপাতালের উদ্দেশ্যে রওনা হন।

মল্লনা ভাগু ঝিলের কাছে এলে দেখা যায়, সেখানকার অস্থায়ী সেতুটি জলের তোড়ে ভেসে গিয়েছে। কোন উপায় না দেখে এরপর ওই মহিলার স্বামী আশপাশের কয়েক জন মানুষকে সাহায্য করতে বলেন। কাজটিতে যথেষ্ট ঝুঁকি ছিল। কোনও ভুল হলেই তার চরম মূল্য দিতে হত। কিন্তু পরিবারের কাছে বা ওই গর্ভবতী মহিলার কাছে এছাড়া অন্য কোনও রাস্তা না থাকায় শেষ পর্যন্ত তাঁরা ওই রাস্তা নিতে বাধ্য হয়। বহু বিপত্তি পেরিয়ে দশ ঘণ্টা পর অবশেষে হাসপাতালে পৌঁছন তাঁরা। চিকিৎসক পরীক্ষার পরে জানিয়েছে, ওই মহিলা ও গর্ভস্থ শিশু দু’জনেই ভালো আছেন।

Related Articles

Back to top button
Close