fbpx
হেডলাইন

ব্যবসায়ীর বাড়িতে ডাকাতি, সপ্তাহ পেরোলেও গ্রেফতার নেই, বিক্ষোভ কাটিগড়ায়

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: চেরাগি বাজারের ব্যবসায়ী হবিবুর রহমানের বাড়িতে ডাকাতির ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতারের দাবিতে এবার সরব হলেন এলাকার মানুষ। মঙ্গলবার লাঠিমারা, জগদীশপুর গ্রামের শতাধিক মানুষ কাটিগড়ার সার্কল অফিসের সামনে বিক্ষোভ প্রদর্শন করে। যদিও সার্কল অফিসে প্রবেশ করতে দেওয়া হয়নি বিক্ষোভকারীদের। তার আগেই সার্কল অফিসের মূল ফাটক বন্ধ করে বিক্ষোভকারীদের আটকে দেয় পুলিশ। পরে সার্কল অফিসার প্রাঞ্জিত দেব এবং থানার ওসি নয়নমণি সিনহার হাতে স্মারকপত্র প্রাদান করা হয়। এতে অবিলম্বে হবিবুর রহমান এবং তাঁর ভাইয়ের বাড়িতে ডাকাতির ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতারের দাবি জানানো হয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, পর পর চুরি, ডাকাতির ঘটনায় রীতিমত আতঙ্কে রয়েছেন এলাকার মানুষ। ব্যবসায়ী হবিবুর রহমান এবং তাঁর সরকারি চাকুরিজীবী ভাই সফিকুর রহমানের বাড়িতে ডাকাতির ঘটনার এক সপ্তাহেরও বেশি সময় অতিবাহিত হয়ে গেলেও কাটিগড়া পুলিশ এখনও কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি। বিষয়টা অত্যন্ত উদ্বেগজনক। প্রসঙ্গত, ১৫ জুলাই চেরাগি বাজারের ব্যবসায়ী হবিবুর রহমানের দোকানে চুরি হয়। চোরেরা হবিবুরের দোকানের ভেন্টিলেটর ভাঙে প্রায় সত্তর লক্ষ টাকা চুরি করে পালিয়ে যায়। চুরির ঘটনায় জড়িত সন্দেহে পুলিশ অবশ্য ইতিমধ্যে কয়েকজনকে গ্রেফতার করেছে।দোকানে চুরি কাণ্ডের দু’মাসের মাথায় ব্যবসায়ী হবিবুরের লাঠিমারার বাড়িতে এক দল ডাকাত হানা দেয়। বন্দুক সহ ধারালো অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে বিশ-বাইশ জনের ডাকাত দল ব্যবসায়ীর বাড়িতে হানা দিয়ে টাকাখড়ি সহ মোবাইল, লেপটপ, স্বর্ণালংকার লুঠে নিয়ে যায়। ব্যবসায়ী এক ছেলেকে মারপিটও করে ডাকাতরা।

একই রাতে ব্যবসায়ীর ভাই কাটিগড়া সিনিয়র মাদ্রাসার শিক্ষক সফিকুর রহমানের বাড়িতেও ডাকাতি ঘটনা ঘটে। হবিবুরের ঘরে ডাকাতরা প্রবেশ করার আগে সফিকুরের ঘরে তাণ্ডব চালায় ডাকাত দল। নগদ ধন সহ সোনাদানা হাতিয়ে নেয় ওই বাড়ি থেকেও। ঘটনার এক সপ্তাহেরও বেশি সময় কেটে গেলে এনিয়ে এখনও কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ। ফলে আতঙ্কিত এলাকার মানুষ।সার্কল অফিসার সহ ওসির হাতে স্মারকপত্র প্রদান করার সময় উপস্থিত ছিলেন কাটিগড়া জিপি সভাপতি মনসুর আহমদ, এপি সংস্থার প্রতিনিধি লুৎফুর রহমান, জাহাঙ্গির আলম,জুবায়রুল ইসলাম, এমাদ উদ্দিন প্রমুখ।

Related Articles

Back to top button
Close