fbpx
দেশহেডলাইন

প্রধানমন্ত্রী ময়ুর নিয়ে ব্যস্ত, নিজের প্রাণ নিজে বাঁচান: রাহুল

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: ভারতে করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর থেকেই মোদি সরকারের বিরুদ্ধে আক্রমণ শুরু করেছেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী। সংসদে বাদল অধিবেশন শুরুর দিনেও সরে এলেন না রাহুল। ভারতের বর্তমানে করোনা পরিস্থিতিতে দেশবাসীকে নিজেদের প্রাণ নিজেদেরই বাঁচাতে হবে বলে মন্তব্য করেছেন রাহুল।

মোদি সরকারের ব্যর্থতা নিয়ে কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী প্রথম থেকেই সোচ্চার। প্রায় নিরলস ভাবে নিয়মিত অতিমারী ও অর্থনৈতিক বিপর্যয় নিয়ে তিনি সরকারের বিরুদ্ধে আক্রমণ শানিয়ে চলেন। এদিনও তার ব্যতিক্রম হল না। সকালেই টুইট করে কংগ্রেসের প্রাক্তন সভাপতি বলেছেন, লাগামহীন ভাবে বেড়ে চলা করোনাভাইরাসের সংক্রমণের সময় দেশের মানুষের জীবন এখন নিজেদেরই সামলাতে হবে কারণ প্রধানমন্ত্রী আপাতত ময়ূর নিয়ে ব্যস্ত রয়েছেন।

তাঁর কটাক্ষ, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এই সময় ময়ুর নিয়ে ব্যস্ত। তাই নিজের প্রাণ নিজেরাই বাঁচান। ওয়ানাড়ের সাংসদ সোমবার সকালে হিন্দিতে টুইট করে বলেন, ‘ভারতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা এই সপ্তাহে ৫০ লাখ ছাড়িয়ে যাবে ও অ্যাকটিভ আক্রান্তের সংখ্যা ১০ লাখ ছাড়িয়ে যাবে। একজন মানুষের অহঙ্কারের ফলেই অপরিকল্পিত লকডাউন হয়েছে, তার ফলে গোটা দেশে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়েছে। মোদি সরকার বলছে আত্মনির্ভর হতে। তার মানে আপনারা নিজেদের প্রাণ বাঁচান। কারণ প্রধানমন্ত্রী ময়ূর নিয়ে ব্যস্ত আছেন।’

এই মুহূর্তে মা সোনিয়া গান্ধীকে নিয়ে বিদেশে মেডিক্যাল চেক-আপে গিয়েছেন রাহুল গান্ধী। বেশ কিছুদিন ধরে শারীরিক অসুস্থতায় ভুগছেন সোনিয়া। সোমবার বাদল অধিবেশনে তাই অনুপস্থিত সোনিয়া-রাহুল। টুইটে রাহুলের উদ্বেগ, এ সপ্তাহেই ৫০ লক্ষ ছাড়িয়ে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। এক ব্যক্তির অহঙ্কারের উপহার হলো অপরিকল্পিত লকডাউন। যার জেরে গোটা দেশে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়েছে।

আরও পড়ুন: করোনা আবহে রসদের অভাব, কোণঠাসা মাওবাদীরা

কিছুদিন আগে লোক কল্যাণ মার্গে প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনে ময়ুরদের সঙ্গে সময় কাটাতে দেখা গিয়েছিল প্রধানমন্ত্রীকে। এই ঘটনার ভিডিও প্রকাশ পেয়েছিল সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেই প্রসঙ্গকেও তুলে আনলেন রাহুল। সংসদে অধিবেশন শুরু হলেও তার প্রথম কয়েক দিন থাকতে পারবেন না রাহুল গান্ধী। তাঁর মা তথা কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধীকে নিয়ে চিকিত্‍সার জন্য বিদেশে গিয়েছেন তিনি। তবে এই কাজের মধ্যেও কেন্দ্রের বিরুদ্ধে ফের একবার অভিযোগ তুললেন তিনি। রাহুলের এই বিরোধিতার জবাব অবশ্য আগেও দেওয়া হয়েছে সরকারের তরফে।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভরেকর মজা করে বলেছিলেন, রাহুল গান্ধী প্রতিদিন টুইট করেন। তাঁদের এই কাজ দেখে মনে হচ্ছে কংগ্রেস দলটা টুইটের দলে পরিণত হয়েছে। মানুষের মধ্যে তাঁদের সমর্থন কমছে। কারণ তাঁরা মানুষের মধ্যে গিয়ে তাঁদের জন্য কাজ করার বদলে ঘরে বসে সরকারের বিরুদ্ধে টুইট করছেন। একটা হতাশ দল সরকারের কাজে সবসময় অসুবিধা করার চেষ্টা করছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি। কেন্দ্রের এই কটাক্ষের পরেও যে নিজের অবস্থান থেকে সরে আসতে রাহুল গান্ধী নারাজ, তা আরও একবার তিনি বুঝিয়ে দিলেন। দেশে না থেকেও মোদি সরকারের বিরুদ্ধে তাঁর আক্রমণ চলল। এবার মোদীর আত্মনির্ভর ভারতের স্লোগান ও তাঁর ময়ুরের ভিডিও নিয়ে কটাক্ষ করলেন কংগ্রেস নেতা।

 

 

 

 

Related Articles

Back to top button
Close