fbpx
আন্তর্জাতিকগুরুত্বপূর্ণহেডলাইন

করোনা ভাইরাসের সেকেন্ড ওয়েভ…ফের লকডাউন ইংল্যান্ডে, আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়াল ১০ লক্ষ

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: করোনার ত্রাস কিছুতে পিছু ছাড়ছে না। ক্রমশ আতঙ্ক বাড়িয়ে তুলছে। ইংল্যান্ডে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়াল ১০ লক্ষ। ফলে ফের লকডাউনে পথে দেশ। একমাসের জন্য লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। সমস্ত দিক বিবেচনা করেই প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন নতুন করে দেশে লকডাউনের ঘোষণা করলেন বলে জানিয়েছেন। বৃহস্পতিবার থেকে ইংল্যান্ডে লকডাউন শুরু হয়েছে যা ডিসেম্বরের ২ তারিখ অবধি চলবে। করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১০ লক্ষ পেরিয়ে যাওয়ার এই সিদ্ধান্ত।

ইংল্যান্ডে এটা করোনা ভাইরাসের সেকেন্ড ওয়েভ বলেই মনে করছে বিশেষজ্ঞ মহল। করোনা আক্রান্তের সংখ্যা যেভাবে বাড়ছে তাতে আতঙ্কে বিশেষজ্ঞ মহল। এই মুহূর্তে এক একদিনে ইংল্যান্ডে ২০ হাজার মানুষ নতুন করে করোনা আক্রান্ত হচ্ছেন।

মানুষকে একেবারেই বিশেষ কারণ ছাড়া কোনওভাবেই বাড়ির বাইরে বের হতে নিষেধ করা হয়েছে। এই কারণগুলির মধ্যে রয়েছে পড়াশুনো, কাজ, ব্যায়াম, নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস ও ওষুধপত্র কেনা। তবে অথর্ব, দুঃস্থদের পরিষেবার ক্ষেত্রে বিশেষ ছাড় দেওয়া হচ্ছে।

এদিনের সাংবাদিক সম্মেলনে বরিস জনসন জানান, ”এখন এটা পদক্ষেপ নেওয়ার সময় আর কোনও বিকল্প নেই। ” এদিনের সাংবাদিক সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের সঙ্গে ছিলেন প্রধান মেডিক্যাল অফিসার ক্রিস হুয়িটি এবং প্রধান সায়েন্টিফিক অ্যাডভাইসর প্যাট্রিক ভ্যালান্সে।

আরও পড়ুন: ফের উত্তপ্ত ফ্রান্স, ক্যাথলিক চার্চের প্রিস্টকে লক্ষ্য করে পর পর গুলি

বরিস জনসন জানিয়েছে করোনা ভাইরাস আপতকালীন মজুরি ভর্তুকি স্কিম চালু করা হবে । যাতে সারা ইংল্যান্ডের যে কর্মচারীরা কাজ করতে পারবেন না তারা অর্থ পান। তাদের মাইনের ৮০ শতাংশ তাঁদের হাতে তুলে দেওয়া হবে। অত্যাবশকীয় পণ্য, স্কুল, বিশ্ববিদ্যালয় খোলা থাকবে। তবে পাব ও রেস্তোঁরা বন্ধ থাকবে। তবে টেক অ্যাওয়ে পরিষেবা খোলা থাকবে। অত্যাবশকীয় নয় এরকম সমস্ত দোকান বন্ধ থাকবে।

Related Articles

Back to top button
Close