fbpx
একনজরে আজকের যুগশঙ্খদেশপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

১৮ ডিসেম্বর বিজেপিতে শুভেন্দু! জল্পনা তুঙ্গে 

ইন্দ্রাণী দাশগুপ্ত, নয়াদিল্লি: যাবতীয় জল্পনার অবসান। সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে সম্ভবত ডিসেম্বরের ১৮ তারিখ দিল্লিতে বিজেপিতে যোগদান করতে চলেছেন শুভেন্দু অধিকারী। সূত্রের খবর, শুভেন্দুর সঙ্গে দলে যোগদান করতে পারেন তৃণমূলের বেশ কিছু বিধায়ক, প্রাক্তন সাংসদ এবং বিভিন্ন অঞ্চলের তৃণমূল নেতৃত্ব। সেই কারণে অনেকেই ১৬ ও ১৭ তারিখ দিল্লিতে পৌঁছনোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ১৮ তারিখ যোগদানের পর ১৯ তারিখ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহর সঙ্গে পশ্চিমবঙ্গে একই মাস্ক থাকবেন শুভেন্দু।

মেদিনীপুর স্পোর্টস কমপ্লেক্সে অমিত শাহের সঙ্গে সাংগঠিক বৈঠকেও তাঁকে দেখা পারে বলে মনে করছেন রাজনীতিবিদরা। বিজেপির কর্মসূচিতে তিনি অংশগ্রহণ করবেন বলেও ধারণা রাজনৈতিক মহলে। আবার অন্য একটি মহলের বক্তব্য, তৃণমূলের সঙ্গে দূরত্ব তৈরি হওয়ার পরে শুভেন্দু বরাবরই নিজেকে জননেতা বলে প্রচার করতে চেয়েছেন। সেই দিক থেকে অমিত শাহর পশ্চিমবঙ্গ সফরকালে আরও অনেককে নিয়ে বিজেপিতে যোগদান করতে পারেন শুভেন্দু অধিকারী। যদিও এ নিয়ে মুখে কুলুপ এঁটেছে তৃণমূল ও বিজেপি নেতৃত্ব। শুভেন্দু অধিকারীর সঙ্গে তৃণমূলের বিচ্ছেদ এখন শুধু সময়ের অপেক্ষা। এরই মধ্যে বিভিন্ন কর্মসূচিতে একাধিকবার দিল্লি এসেছেন দিব্যেন্দু অধিকারী।

আরও পড়ুন: শিবপুরে টোল প্লাজায় আটকানো হল অধীর চৌধুরীর গাড়ি, ক্ষুদ্ধ সাংসদ

শুভেন্দু অধিকারীর সঙ্গে যাঁরা যোগদান করবেন তাঁদের তালিকা ক্রমশ লম্বা হচ্ছে। উত্তরবঙ্গ থেকে শুরু দক্ষিণবং, মুর্শিদাবাদ, মালদা-সহ একাধিক জায়গায় তৃণমূল কংগ্রেসের ভাঙন ধরাবেন শুভেন্দু অধিকারী, এমনই জল্পনা চলছে রাজধানীর অন্দরে।এই প্রসঙ্গে সাংসদ অর্জুন সিং কোনও রাখঢাক না করে বলেন, ‘শুভেন্দু মতো বা জিতেন্দ্র তিওয়ারির মতো রাজনৈতিক নেতা, যাঁরা হাজার হাজার মানুষের ভাবাবেগ বোঝেন, যাঁরা সত্যিই রাজ্যের জন্য কিছু করতে চান, তাঁদের বরাবরই বিজেপি স্বাগত জানিয়েছে। আসলে আমি অনেক আগেই বুঝতে পেরেছিলাম তৃণমূলের কংগ্রেস দলটা ক্রমশ অত্যাচারী এবং দুর্নীতিগ্রস্ত লোকেদের আখড়া হয়ে উঠেছে। যখন কোনও রাজনৈতিক দলকে শুধুমাত্র ক্ষমতার লোভে সম্পূর্ণ বাণিজ্যিক রূপ দেওয়ার চেষ্টা করা হয় তখন মানুষের সঙ্গে তাদের বিচ্ছেদ ঘটে। তৃণমূলের কংগ্রেসের ঠিক হয়েছে। আমি অত্যন্ত জোর গলায় বলছি, ৫০ জনের বেশি বিধায়ক যোগাযোগ রাখছেন আমাদের সঙ্গে। দুটি খেপে তাঁরা বিজেপিতে যোগদান করবেন কয়েকদিনের রাখছেন আমাদের মধ্যেই। পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতি এমন একটা সমীকরণ যোগ হবে না যা বিজেপিকে নিরুঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠ এনে দেবে। আমাদের আশা, বিধানসভা নির্বাচনের আগেই সংখ্যাগরিষ্ঠতা হারিয়ে তৃণমূল সরকার এমনিই পড়ে যাবে’।

Related Articles

Back to top button
Close