fbpx
কলকাতাগুরুত্বপূর্ণহেডলাইন

বিধায়কের মৃত্যুর প্রতিবাদে মৌনমিছিল, আইনশৃঙ্খলা নিয়ে নালিশ রাজ্যপালকে

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: উত্তরবঙ্গের হেমতাবাদের বিধায়ক দেবেন্দ্রনাথ রায়ের রহস্যজনক মৃত্যুর সিবিআই তদন্তের দাবিতে বিজেপির সদর দফতর থেকে যোগাযোগ ভবন পর্যন্ত মৌন মিছিল করে বিজেপি।

 

 

এরপর রাজ্যপালের কাছে রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে একগুচ্ছ অভিযোগ জানায়। একইসঙ্গে গেরুয়া শিবির জানিয়ে দেয় রাজ্যের পুলিশের উপর তাঁদের আস্থা নেই। তাঁরা এই মৃত্যুর ঘটনায় সিবিআই তদন্ত চান। এছাড়াও বিজেপির একটি প্রতিনিধিদল কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে দেখা করবেন। রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সাক্ষাৎ করার জন্যও সময় চাওয়া হয়েছে।

 

সোমবার মিছিল শেষে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘ আমি দুঃখিত লকডাউন ভাঙার জন্য। কিন্তু এই জঘন্য হত্যাকাণ্ডের পর এভাবে প্রতিবাদের রাস্তায় নামা ছাড়া উপায় ছিল না। মঙ্গলবার উত্তরবঙ্গে আমরা ১২ ঘণ্টার বন্ধ ডেকেছি। আইনশৃঙ্খলার অবনতি ও রাজনৈতিক হিংসার প্রতিবাদে বন্ধ ঢাকা হয়েছে, ঝগড়া করার জন্য নয়। সাধারণ মানুষকে বনধ সফল করার জন্য আহ্বান করছি।’

 

মঙ্গলবার উত্তরবঙ্গে ১২ ঘণ্টার বন্ধ ছাড়াও বুধবার রাজ্যের সমস্ত থানার সামনে বিক্ষোভ হবে। এদিনের মিছিলে যোগ দেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, কেন্দ্রীয় সম্পাদক রাহুল সিনহা, সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু, সম্পাদক সব্যসাচী দত্ত সহ দলের একাধিক নেতা কর্মীরা।
তৃণমূল কংগ্রেসের সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব। দলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক (সংগঠন) বিএল সন্তোষ টুইট করেছেন, ‘হেমতাবাদের বিজেপি বিধায়ক দেবেন্দ্রনাথ রায়ের বাড়ির কাছে তাঁর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ২০১৯ নির্বাচনের সময় তিনি দলে যোগ দেন। স্থানীয়রা বলছেন, তাঁকে খুন করে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে। মমতা সরকারের গুণ্ডারাজের আরও একটি নৃশংস হত্যা।’

 

কেন্দ্রীয় পরিবেশ প্রতিমন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয় টুইটের লিখেছেন, ‘সোশ্যাল মিডিয়ায় কিছু লেখার ভাষা খুঁজে পাচ্ছিনা। বেশি কিছু লিখতেও চাইনা। এর উত্তর আমরা মানুষকে সঙ্গে নিয়ে দেবো। শুধু সময়ের অপেক্ষা।’ কেন্দ্রীয় সম্পাদক রাহুল সিনহা দাবি করেছেন হেমতাবাদের বিধায়ককে পরিকল্পনা মাফিক খুন করা হয়েছে।

 

 

তিনি বলেন, ‘ উত্তর দিনাজপুরে যেভাবে বিজেপির প্রতি জনমত সংগঠিত হচ্ছিল তার দেখে ভীত হয়ে তৃণমূল কংগ্রেস এই হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে।আমরা চাইছি এই হত্যাকাণ্ডের সিবিআই তদন্ত হোক।’ কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী দেবশ্রী চৌধুরী ও এই নৃশংস হত্যা কাণ্ডের সিবিআই তদন্তের দাবি করেছেন। এছাড়াও বিজেপির একাধিক নেতৃত্ব এই হত্যাকাণ্ডের বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন।

Related Articles

Back to top button
Close