fbpx
দেশহেডলাইন

দেশে নিম্নমুখী করোনা সংক্রমণের গ্রাফ!

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: অবশেষে নিম্নমুখী হতে চলেছে করোনা সংক্রমণের গ্রাফ? মঙ্গলবার সকালে স্বাস্থ্য মন্ত্রকের দেওয়া তথ্য বলছে, এই নিয়ে লাগাতার তৃতীয় দিন দেশে নতুন করোনা আক্রান্তের সংখ্যা কমের দিকে। এবং সেটা বেশ উল্লেখযোগ্য হারেই। শুধু তাই নয়, নতুন সংক্রমণ কমার পাশাপাশি সুস্থতার হার এবং পরীক্ষার সংখ্যাটাও লাগাতার বাড়ছে। মঙ্গলবার সকালে স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রকের  দেওয়া পরিসংখ্যান বলছে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ৫৫ হাজার ৭৯ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। যা কিনা গতকালের থেকে অনেকটাই কম। ফলে দেশে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৭ লক্ষ ২ হাজার ৭৪৩ জন। এদের মধ্যে ১৯ লক্ষ ৭৭ হাজার ৭৮০ জন ইতিমধ্যেই সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। অর্থাৎ গত ২৪ ঘণ্টায় সাড়ে ৫৬ হাজারেরও বেশি মানুষ সুস্থ হয়েছেন। তবে, দেশে এখনও ৬ লক্ষ ৭৩ হাজার ১৬৬ জন করোনা রোগী চিকিৎসাধীন। সংক্রমণের নিরিখে এখনও বিশ্বে তৃতীয় স্থানে ভারত। তবে শুধু আগস্ট মাসের সংক্রমণের নিরিখে আমেরিকা এবং ব্রাজিলকে অনেকটাই পিছনে ফেলে দিয়েছে এদেশ।

দেশে সংক্রমণ বৃদ্ধির পাশাপাশি অন্যান্য দেশের তুলনায় মৃত্যুর হারটাও অনেকটাই কম। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে মৃত্যু হয়েছে ৮৭৬ জনের। ফলে দেশে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৫১ হাজার ৭৯৭ জন। তাৎপর্যপূর্ণভাবে গত কয়েক সপ্তাহে পরীক্ষার সংখ্যাটা ব্যাপক হারে বেড়েছে। ইতিমধ্যেই মোট নমুনা পরীক্ষা ৩ কোটি পেরিয়েছে।

মহারাষ্ট্রে বেশ কয়েকদিন পরে করোনা সংক্রমণ অনেকটাই নিম্নমুখী। গত ২৪ ঘন্টায় রাজ্যে মারণ ভাইরাসে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৮ হাজার ৪৯৩ জন। যার ফলে আক্রান্তের সংখ্যা ৬ লাখের গণ্ডি পেরিয়ে গিয়েছে। মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৬ লক্ষ ৪ হাজার ৩৫৮ জনে। পাশাপাশি করোনায় আক্রান্ত হয়ে আরও ২২৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। ফলে রাজ্যে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২০ হাজার ২৬৫ জনে। তার মধ্যে দেশের বাণিজ্য নগরী মুম্বইতেই মারণ ভাইরাসের বলি হয়েছেন ৭ হাজার ১৭৩ জন।

আরও পড়ুন: ‘কংগ্রেস নিজেই জানে না, তাঁদের নেতৃত্ব কী করেছে আর কী করেনি’ বাবরি মসজিদ ইস্যুতে কটাক্ষ সিন্ধিয়ার

দক্ষিণের অন্ধ্রপ্রদেশেও ধীরে-ধীরে পরিস্থিতির উন্নতি ঘটছে। করোনা সংক্রমণ আরও হ্রাস পেয়েছে। রাজ্যে গত ২৪ ঘন্টায় মারণ ভাইরাসে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৬ হাজার ৭৮০ জন। মোট আক্রান্তের সংখ্যা তিন লক্ষ ছুঁইছুঁই করছে। এখনও পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ২ লক্ষ ৯৬ হাজার ৬০৯ জন। একই সময়ে আরও ৮২ জনের প্রাণ কেড়েছে মারণ ভাইরাস। যার ফলে মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২ হাজার ৭৩২ জনে।

করোনাভাইরাসের বেলাগাম সংক্রমণে অনেকটাই রাশ টেনেছে তামিলনাডু। দ্রাবিড়ভূমিতে গত ২৪ ঘন্টায় ৫ হাজার ৮৯০ জনের শরীরে মারণ ভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়েছে। ফলে মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩ লক্ষ ৪৩ হাজার ৯৪৫ জনে। করোনার ছোবলে আরও প্রাণ হারিয়েছেন ১২০ জন। এ নিয়ে রাজ্যে মারণ ভাইরাসের বলি হলেন ৫ হাজার ৮৮৬ জন।

উত্তরপ্রদেশে অবশ্য করোনার সংক্রমণে রাশ টানা যাচ্ছে না। গত ২৪ ঘন্টায় রাজ্যে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৪ হাজার ৪৫৪ জন। যোগী আদিত্যনাথের রাজ্যে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে এক লক্ষ ৫৪ হাজার ৪১৮ জন। পাশাপাশি আরও ৫৮ জন প্রাণ হারানোয় এখনও পর্যন্ত ২ হাজার ৪৪৯ জন প্রাণ

 

Related Articles

Back to top button
Close