fbpx
অসমহেডলাইন

অতীতের দিকপাল খেলোয়াড়দের নামগুলি স্মরণীয় রাখতে উদ্যোগ ক্রীড়া সাংবাদিক সংস্থা বাকসে’র

যুগশঙ্খ প্রতিবেদন, শিলচর: অতীতের দিকপাল খেলোয়াড়দের নামগুলি স্মরণীয় করে রাখতে এক অভিনব উদ্যোগ হাতে নিয়েছে বরাক উপত্যকা ক্রীড়া সাংবাদিক সংস্থা (বাকস)। উপত্যকার তিন জেলার বিংশ শতাব্দির সেরা ফুটবল একাদশ গঠন করল তারা। গত সোমবার করিমগঞ্জের শতাব্দীর সেরা দলটির নাম আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করা হয়। আজ হাইলাকান্দি জেলা ক্রীড়া সংস্থার কার্যালয়ে অনুরূপ আরেকটি অনুষ্ঠানে ওই জেলার অতীতের দিকপাল খেলোয়াড়দের নামের তালিকা ঘোষণা করা হল। ১৯০১ সাল থেকে ২০০০ সাল পর্যন্ত যেসব ফুটবলার হাইলাকান্দিতে খেলেছেন কিংবা হাইলাকান্দি থেকে অন্যত্র গিয়ে ফুটবল মাঠে সফল হয়েছেন, তাদের মধ্য থেকে সেরা একাদশ বাছাই করা হল। এর বাইরে চার জন রিজার্ভ খেলোয়াড় সহ পুরো একটি দল তৈরি করা হয়। ১৫ জনের একটি নির্বাচক প্যানেল নিজেদের পছন্দের তালিকাগুলি জমা দিয়েছিলেন। এরপর সর্বাধিক ভোট প্রাপ্তদের নিয়ে গড়া হল সেরা দল।

কোভিড-১৯ পরিস্থিতির জন্য সব প্রটোকল মেনে এবং সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে দল ঘোষণা করা হয়। সেই সঙ্গে বাকস-এর ফেসবুক পেজে পুরো অনুষ্ঠান লাইভ করা হয়। ফলে দর্শকরা ঘরে বসে সঙ্গে সঙ্গে পুরো তালিকা জানতে পেরেছেন।

আরও পড়ুন: প্রধানমন্ত্রীর ৭০তম জন্মদিন, শুভেচ্ছা রাহুল-নাড্ডা-সহ অন্যান্যদের

শতানন্দ ভট্টাচার্যর পৌরোহিত্যে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন হাইলাকান্দি ডি এস এ-র সচিব শৈবাল সেনগুপ্ত ( Shaibal Sengupta ), বাকস-এর প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি রিতেন ভট্টাচার্য, কেন্দ্রীয় সচিব দ্বিজেন্দ্রলাল দাস, প্রাক্তন সহসভাপতি শংকর চৌধুরী ( Shankar Choudhury ), পিনাকি ভট্টাচার্য, সামস উদ্দিন বড়লস্কর প্রমুখ। দুই নির্বাচক যথাক্রমে বিজু মালাকার ও উজ্জ্বল কুমার দাসের মৃত্যুতে এদিন দল ঘোষণা করার আগে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়। এছাড়া বাকসের প্রাক্তন উপদেষ্টা নীলোৎপল চৌধুরী ও প্রয়াত সাংবাদিক অসীম দত্তের স্মরণে‌ও নীরবতা পালন করা হল।

বাকসের কেন্দ্রীয় সচিব দ্বিজেন্দ্রলাল দাস ( Dwijendralal Das) বলেন, নির্বাচকদের জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল যে তারা কেউ তালিকায় নিজের নাম দিতে পারবেন না। সেভাবেই প্রত্যেকে তালিকা জমা দিয়েছেন। বাকসের হাতে সেই তালিকা গত জুলাই মাসে জমা পড়ে। করোনাকালে এই শতাব্দীর সেরা দল বাছাই করার প্রস্তাব দিয়েছিলেন তাজ উদ্দিন। বাকস সেটা অনুমোদন করে কাজে ঝাঁপিয়ে পড়ে। আগামী ১৮ সেপ্টেম্বর কাছাড় জেলার (শিলচর) দল ঘোষণার মাধ্যমে ফুটবলের শতাব্দীর সেরা বাছাই প্রক্রিয়া শেষ হচ্ছে।

হাইলাকান্দির বিংশ শতাব্দির ( 20th century) সেরা ফুটবল একাদশ এরকম— মহেশ দাস (গোলকিপার), সূরচন্দ্র সিংহ, আফতাব উদ্দিন বড়ভূঁইয়া, বুদ্ধ সিংহ, মাইদালং কাবুই (ডিফেন্ডার), বীর বাহাদুর ছেত্রী, দীপক কুমার দাস, আনিসুর রহমান বড়লস্কর (মিডফিল্ডার), তমর উদ্দিন, গিয়াস উদ্দিন মজুমদার, মেহবুব হুসেন চৌধুরী (ফরোয়ার্ড)। এছাড়া চারজন রিজার্ভ খেলোয়াড় হলেন যথাক্রমে অসমঞ্জ ভট্টাচার্য (গোলকিপার), ফরিজ উদ্দিন চৌধুরী (ডিফেন্ডার), জিয়াউর রহমান বড়লস্কর (মিডফিল্ডার) ও স্বপন পাল (ফরোয়ার্ড)। ঘোষিত দলটির একটি তালিকা এদিন হাইলাকান্দি ডি এস এ-র সচিব শৈবাল সেনগুপ্তর হাতে তুলে দেন BUKSS -এর প্রাক্তন সচিব তাজ উদ্দিন ( Md Taz Uddin )।

প্রসঙ্গত, এদিনের পুরো অনুষ্ঠান তিনি সঞ্চালনা করেন। সঙ্গে সহযোগিতা করেন ইন্দ্রজিৎ সিনহা ( Indrajit Sinha ) এবং বিমান সিনহা।

আরও পড়ুন:ফের রক্তাক্ত উপত্যকা, এনকাউন্টারে খতম ৩ জঙ্গি, মৃত্যু হল এক মহিলারও

মূল দল ঘোষণা করার পাশাপাশি বাকস হাইলাকান্দির  (Hailakandi ) শতাব্দীর সেরা দল গঠন প্রক্রিয়ায় যারা একাধিক ভোট পেয়েছেন, তাঁদের নামের একটি শর্টলিস্ট‌ও প্রকাশ করা হয়। এই তালিকায় অতীতের অনেক নামী খেলোয়াড় জায়গা পেয়েছেন। শর্টলিস্টটি হল—জালাল উদ্দিন লস্কর, বিধু ভূষণ দাস, হিমেন্দু সেনগুপ্ত, সাহাব উদ্দিন লস্কর (সবাই গোলকিপার), আব্দুল আজিম লস্কর, প্রভাত চন্দ্র নাথ, লায়েক উদ্দিন বড় ভূঁইয়া, সামসুল হুসেন বড়ভুঁইয়া, বশির আহমদ মাঝারভুঁইয়া, রামসুন্দর চক্রবর্তী, রতন দেব, দল বাহাদুর ছেত্রী, রুণু রাহা, বারীন সিনহা (সবাই ডিফেন্ডার), শৈবাল সেনগুপ্ত, নীলকান্ত সিংহ, গনির উদ্দিন লস্কর, কানু দেব, মহবুবুর বড়লস্কর, মায়াজুল হক, ফকর উদ্দিন লস্কর, নাম‌ওর আলি লস্কর (সবাই মিডফিল্ডার), বীরমণি সিংহ, সমর উদ্দিন, সাহাব উদ্দিন, উজ্জল কুমার দাস, দেবাশিস রায়, ফ‌ইজ আহমদ লস্কর, রসরাজ ভট্টাচার্য (সবাই ফরোয়ার্ড)।

Related Articles

Back to top button
Close