fbpx
গুরুত্বপূর্ণপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

রাজ্যের খাদ্যমন্ত্রী চাল চোর, চাল চাইতে গেলে জুটছে গুলি: সৌমিত্র খাঁ

শ্যাম বিশ্বাস, উত্তর ২৪ পরগনা: ‘রাজ্য খাদ্যমন্ত্রী চাল চোর, চাল চাইতে গেলে তার বদলে জুটছে গুলি,’ বসিরহাট মহকুমার সন্দেশখালির ঘটনার আক্রান্ত বিজেপি কর্মীদের বসিরহাট জেলা হাসপাতলে দেখতে এসে এই কথা বলেন সাংসদ সৌমিত্র খাঁ।

রাজ্যে বিভিন্ন জায়গায় বিজেপি কর্মী সমর্থকরা আক্রান্ত হচ্ছে, পুলিশকে দিয়ে ভয় দেখানো হচ্ছে। এক সময় দেখতাম বিখ্যাত সিনেমা অমিতাভ বচ্চনের শোলে যেখানে কেউ কিছু করলে গব্বর সিং গুলি চালাতো। এখানে দেখছি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় গুলি চালাচ্ছে। মানুষকে কথা বলতে দিচ্ছে না, আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি করেছে।

সন্দেশখালির আজকের এই ঘটনা উদাহরণ ফলসরূপ, পাশাপাশি আজকে বসিরহাট দক্ষিণ বিধানসভা টাউন হল বিজেপির পার্টি অফিস থেকেই ইটিন্ডা রোড হয়ে বসিরহাট জেলা হাসপাতাল পর্যন্ত কয়েকশো বিজেপি কর্মী নেতাসহ প্রথমে জমায়েত। তারপর মোটর বাইক Rally করেন।

এই প্রসঙ্গে সাংবাদিকরা জিজ্ঞেস করলে সৌমিত্র খাঁ বলেন, আমি সামাজিক বিধি লঙ্ঘন করিনি। কর্মী-সমর্থকদের উৎসাহ দিতে এসেছি, পাশাপাশি রাজ্যের খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিককে এক হাত নিয়ে কটূক্তি করেন উনিতো চাল চোর, চাল চাইলে মানুষকে গুলি খাওয়াচ্ছে। পাশাপাশি বিডিওর কাছে কেউ চাল চাইতে গেলে মন্ত্রীর সাগরেদরা গুলি চালাচ্ছে বিজেপি কর্মী সমর্থকদের উপরে, রাতের অন্ধকারে মারধর করছে।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নিয়ে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, যাকে মায়ের মত দেখতাম তিনি এখন কলঙ্ক, কেন্দ্র সরকারের অর্থ কিভাবে ভাইপোর তহবিলে জমা করা যায় সেই চেষ্টা উনি করছেন। সন্দেশখালি ঘটনা নিয়ে তিনি বুদ্ধিজীবীদের কটাক্ষ করে বলেন, এই ঘটনায় কেন বুদ্ধিজীবীরা আসছেন না। তাহলে কি রাজ্য সরকারের কাছ থেকে দু লক্ষ টাকা করে মাইনে পাচ্ছে সেই কারণেই কি মুখ খুলছেন না? তিনি আরও বলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের গ্রেফতারের দাবি জানাচ্ছি।

Related Articles

Back to top button
Close