fbpx
কলকাতাহেডলাইন

রাজনীতি না করে সেনার সঙ্গে থাকুন, দেশের সঙ্গে থাকুন,কংগ্রেস, সিপিএম, তৃণমূলকে কড়া বার্তা দিলীপের

শরণানন্দ দাস, কলকাতা: গলওয়ান উপত্যকায় ভারত- চিন সেনা সঙ্ঘর্ষে শহিদ ভারতীয় সেনাদের টুইট করে শ্রদ্ধা জানান বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। পাশাপাশি তৃণমূল, সিপিএম, কংগ্রেসের মতো বিরোধী দলের উদ্দেশ্যে কড়া বার্তা দিলেন। তিনি বলেন, ‘রাজনীতি না করে সেনার পাশে, দেশের পাশে থাকুন।’  এদিন বিজেপি রাজ্য সভাপতি শহিদুল সৈনিকদের উদ্দেশ্যে টুইটে লিখেছেন, ‘সাম্রাজ্যবাদী চিনের ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে নিহত সাহসী সেনাদের জন্য দেশ গর্বিত। তাঁদের এই বলিদান দেশ সবসময় মনে রাখবে। তাঁদের অমর আত্মার শান্তি কামনা করি।’

বুধবার বারুইপুরের বিজেপি দফতরে সাংবাদিক বৈঠকে তিনি বলেন, ‘ লাদাখে চিনের আগ্রাসনের নিয়ে বিজেপি চুপ করে নেই। আমার প্রশ্ন সিপিএম, তৃণমূল কোথায়? বিষয়টি স্পর্শকাতর। সরকার বলবে কি হয়েছে। এটা নিয়ে বিতর্ক তৈরি না করাই ভালো। ভেবেচিন্তে কথা বলা উচিত।’ তিনি আরও বলেন, ‘ দেশের দিকে যে বাঁকা চোখে তাকাবে বিজেপি তাকে ছেড়ে কথা বলবে না। সীমান্তে আমাদের সেনার উপর ভরসা আছে। দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, তাঁর উপর ভরসা আছে। গোটা বিশ্ব মোদিজিকে সম্মান করে। তাই আবারও বলছি এ বিষয়ে রাজনীতি করবেন না। বীরভূমের শহিদ জওয়ানের শবদেহ আসছে। কলকাতা বিমানবন্দরে বিজেপির নেতারা সম্মান প্রদর্শন করবেন। বীরভূমেও আমাদের নেতারা থাকবেন।

আরও পড়ুন: সংখ্যালঘু পরিবার সহ ২০০ জন যোগ দিলেন বিজেপিতে

এদিন রাহুল গান্ধি প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশ্যে টুইট করে কটাক্ষ করেন। তিনি টুইটের লেখেন, ‘প্রধানমন্ত্রী চুপ কেন? যথেষ্ট হয়েছে, কী হয়েছে, তা আমাদের জানা প্রয়োজন। চিন আমাদের সেনাকে হত্যা করার সাহস দেখায় কি করে?’ এ সম্পর্কে প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে দিলীপ ঘোষ বলেন,’ কংগ্রেসের কোন কাজ নেই সমালোচনা করা ছাড়া। দেশের লোক ওদের প্যাক করে বাড়ি পাঠিয়ে দিয়েছে। প্রধানমন্ত্রী কাজ করেন, রাহুল গান্ধির কাজ নেই তাই ভাষণ দিয়ে বেড়ান। আর উল্টোপাল্টা বকেন। এবিষয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী আমিতজি বলবেন, প্রতিরক্ষামন্ত্রী বলবেন, বিদেশমন্ত্রী বলবেন, কোন তথ্য লুকোনোর হবে না। ‘ এই সঙ্গে তাঁর কটাক্ষ, ‘দেশ যখন সঙ্কটে পড়ে তখন রাহুল গান্ধি দু’ মাস ধরে গায়েব হয়ে যান।’

Related Articles

Back to top button
Close