fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

হাতুড়ে চিকিৎসকের হাতে আক্রান্ত শিক্ষক

শ‍্যাম বিশ্বাস, উত্তর ২৪ পরগনা: হাতুড়ে চিকিৎসকের হাতে আক্রান্ত হলেন এক শিক্ষক। বসিরহাট মহাকুমার হিঙ্গলগঞ্জ থানার মামুদপুর এর ঘটনা। আমফানের পর ধানের জমিতে চাষ করতে গিয়ে ভাইপোর হাতে জ্যাঠা আক্রান্ত হন। শুক্রবার দুপুরে আমফান এর পর চারা ধান বুনতে যান প্রাইমারি  স্কুলের অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক বছর পয়ষট্টির  কনক কান্তি মান্না। সেই সময়ে ভাইপো ইন্দ্রজিৎ মান্না পেশায় ওই এলাকায় হাতুড়ে চিকিৎসক আচমকাই ধানের জমির ওপর গিয়ে জ্যাঠার ওপর লোহার রড, বাঁশ, লাঠি নিয়ে হামলা চালায়। ব্যাপক মারধর করে মাথা ফাটিয়ে দেয় বলে অভিযোগ।

[আরও পড়ুন- বীজপুর থানার আইসি বদল, নিখোঁজ ব্যক্তিদের সন্ধানে উত্তরবঙ্গে বদলি]

স্থানীয় গ্রামবাসীরা তাঁকে উদ্ধার করে প্রথমে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করে। অবস্থা আশঙ্কাজনক হলে তাঁকে কোলকাতার আরজিকর হাসপাতলে পাঠানো হয়। স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে যে, এই দুই পরিবারের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে জমি নয়ে বিবাদ চলছে। পুরো বিষয়টি নিয়ে তদন্ত শুরু করেছে হিঙ্গলগঞ্জ থানার পুলিশ। দুই পক্ষই থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে, একে অপরের বিরুদ্ধে।

 

Related Articles

Back to top button
Close