fbpx
গুরুত্বপূর্ণপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

শান্তিনিকেতনে অশান্তির আঁচ! অবশেষে ব্যবসায়ীমহলের আপত্তি উড়িয়ে পুরোদমে শুরু হল পৌষমেলার প্রস্তুতি

নিজস্ব সংবাদদাতা, বোলপুর  করোনার আবহে পৌষ মেলার মাঠে শ্রমিক ও ঠিকাদার নিয়ে পাঁচিল  দেওয়ার কাজ শুরু করাকে কেন্দ্র করে ধুন্ধুমার শান্তিনিকেতন।জানা গিয়েছে গতকাল শনিবার পৌষ মেলার জন্য মাঠে কাজ শুরু হলে মেলা কতৃপক্ষের কাজ বন্ধ করে দেওয়া হয় স্থানীয়  বোলপুর ব্যবসায়ী সমিতির পক্ষ থেকে। এমনকি মেলার জন্য কাজ করা  ঠিকাদারকে মারধরের অভিযোগ ওঠে ব্যবসায়ী সমিতির বিরুদ্ধে।  ঘটনাটি সামনে আসতেই সক্রিয় হয় বিশ্বভারতী কতৃপক্ষ।

রবিবার সকালে ব্যবসায়ী সমিতি কতৃক এই আচরনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে বিশ্বভারতীর উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তীর নেতৃত্ব বিশাল মিছিল করে প্রায় তিনশো জন অধ্যাপক,কর্মী শান্তিনিকেতন থানা সংলগ্ন মেলার মাঠে উপস্থিত হন। থানায়  অভিযোগ জানানো হয় ব্যবসায়ী সমিতির বিরুদ্ধে। এরপর থানার সামনে অধ্যাপকদের জমায়েতের ফলে  যাতায়ত বন্ধ করে দেওয়া হয় শান্তিনিকেতন থানা সংলগ্ন রাস্তায়। সঙ্গে সঙ্গে চারদিক ঘিরে ফেলে বিশ্বভারতীর বেসরকারি নিরাপত্তারক্ষীরা। ব্যাপক নিরাপত্তার ঘোরটোপে রাখা হয় উপাচার্যকে। এরপর পুলিশি উপস্থিতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিদ্যাভবন অঙ্গন  থেকে মেলার মাঠে পাঁচিল দেওয়ার জন্য জেসেপি দিয়ে গর্ত করার কাজ শুরু হয়।

ব্যবসায়ী সমিতির সদস্য শৈলেন মিশ্রের  অভিযোগ , বোলপুরে যেভাবে প্রতিদিন করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে, শান্তিনিকেতন থানার পুলিশ কর্মীদের একটা বড় অংশ করোনা আক্রান্ত। কিন্তু  সেই থানার সামনে সামাজিক দূরত্ব না মেনে ৩০০ এর বেশি কর্মী,অধ্যাপদের নিয়ে জমায়েত করেন উপাচার্য। এই বিষয়টিকেই নিয়েই বিশ্ববিদ্যালয়কে কাঠগড়ায় তুলেছেন ব্যবসায়ী সমিতির সদস্যরা।যদিও গোটা বিষয়টি নিয়ে মুখ খোলেননি  বিশ্বভারতীর মুখপত্র অনির্বান সরকার ।

 

 

Related Articles

Back to top button
Close