fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

কাজের প্রলোভন দেখিয়ে ভিন রাজ্যে নিয়ে গিয়ে নাবালিকাকে একাধিকবার ধর্ষণ, বসিরহাট থানায় অভিযোগ জানালো নির্যাতিতা

শ‍্যাম বিশ্বাস, উওর ২৪ পরগনা: কাজের প্রলোভন দেখিয়ে ভিন রাজ্যে নিয়ে গিয়ে নাবালিকাকে একাধিকবার ধর্ষণ। ঘটনাটি ঘটে বসিরহাট মহকুমার বসিরহাট থানার পিফা গ্রাম পঞ্চায়েতের পাইকপাড়া গ্রামের। চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে ১৪ বছরের সপ্তম শ্রেণীর নাবালিকা ছাত্রীকে কাজের প্রলোভন দেখিয়ে অন্ধ্রপ্রদেশে নিয়ে গিয়েছিল প্রতিবেশী যুবক। বছর বাইশের যুবক সম্পর্কে কাকা সাদ্দাম গাজী। সেখানে নিয়ে গিয়ে কাজের বদলে তাকে একাধিকবার ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ। এই কথা বাড়িতে বলতে বারণ করে সাদ্দাম। ওই ছাত্রীর শারীরিক ও মানসিক ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

লকডাউনের জেরে বাড়িও ফিরতে পারছিল না ওই নাবালিকা। এই কথা বাড়িতে ফোন করে একাধিকবার জানায় নাবালিকা। অভিযুক্ত যুবক ভাটার ঠিকাদারের কাজের সঙ্গে যুক্ত। আগস্ট মাসের ১ তারিখে পাইকপাড়ার বাড়িতে আসলে ওই নির্যাতিতা নাবালিকা ছাত্রী পুরো বিষয়টা গ্রামের মানুষকে জানিয়ে দেবে বলে যুবককে জানায়। ওই নাবালিকা ছাত্রীর অভিযোগ  কয়েক মাস আগে সম্পর্কে কাকা সাদ্দাম তার মাথা ন্যাড়া করে দেয়। এমনকি ঐ যুবক নির্যাতিতা ও তার পরিবারকে একাধিকবার ভয় দেখায় যাতে তারা পুলিশে অভিযোগ না করে।

আরও পড়ুন: ভুয়ো আই. টি. আই কেন্দ্রের নামে রমরমা ব্যবসা, প্রতারিত হচ্ছে অসহায় বেকার সমাজ

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বসিরহাট থানায় নাবালিকা তার পরিবারকে সঙ্গে করে যুবকের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ করে। অভিযুক্ত যুবক পলাতক। নির্যাতিতা নাবালিকা ও তার পরিবার ও কাদের সরদার বসিরহাট ১নম্বর ব্লক কংগ্রেসের সভাপতি দাবি জানিয়েছে দোষীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দেওয়া হোক।

Related Articles

Back to top button
Close