fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারে বিচারাধীন বন্দীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার

পিন্টু কুন্ডু, বালুরঘাট: বালুরঘাট কেন্দ্রীয় সংশোধানাগারে বিচারাধীন এক বন্দীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধারের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল। মঙ্গলবার বন্দীদের ওয়ার্ডের এই ঘটনায় রীতিমতো উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। পুলিশ জানিয়েছে মৃত ওই বন্দির নাম লক্ষীরাম হেমব্রম। কুমারগঞ্জের সাফানগরের বাসিন্দা লক্ষীরাম হেমব্রমের বিরুদ্ধে নিজের মাকে কুপিয়ে খুনের অভিযোগ রয়েছে।

জানা গেছে,  চলতি বছরের ১২ এপ্রিল  লক্ষীরাম তার মাকে খুন করে আত্রেয়ী নদীতে ফেলে দেয়। যদিও পরে সে নিজেই পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করে। পুলিশ ১৩ এপ্রিল তাকে  বালুরঘাট জেলা আদালতে তুললে বিচারপতি জেলা হেফাজতের নির্দেশ দেয়। এরপর থেকে সে জেলেই ছিল।

[আরও পড়ুন- বেহাল সড়ক সংস্কারের দাবিতে অবরোধ, ধর্না, বিক্ষোভ কর্মসূচি]

মঙ্গলবার ভোরে ওয়ার্ডের শৌচাগারে তার ঝুলন্ত মৃতদেহ দেখতে পান অনান্য বন্দীরা। ঘটনার খবর পেয়েই  কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারে ছুটে যান জেলা পুলিশের কর্মকর্তারা। এরপরেই মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠান হয় বালুরঘাট জেলা হাসপাতালে। যদিও এবিষয়ে সংবাদমাধ্যমের কাছে মুখ খুলতে চাননি সংশোধনাগারের আধিকারিকরা। মৃতের দাদা জয়রাম হেমব্রম জানিয়েছেন, এদিন সকালে পুলিশ তার বাড়িতে গিয়ে ভাইয়ের আত্মহত্যার খবর দেয়।

 

 

Related Articles

Back to top button
Close