fbpx
কলকাতাগুরুত্বপূর্ণ

স্বস্তিতে অনুব্রত কন্যা, সুকন্যা সহ ৬ জনের হাজিরার নির্দেশ প্রত্যাহার হাইকোর্টের

যুগশঙ্খ, ওয়েবডেস্ক: সুকন্যা সহ ৬ জনের হাজিরার নির্দেশ প্রত্যাহার করল কলকাতা হাইকোর্ট। পাশাপাশি টেট সার্টিফিকেট পেশ করার নির্দেশও প্রত্যাহার করা হয়। এই আদেশ প্রত্যাহার করেন হাইকোর্টের বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়। টেট পাস না করে স্কুলে চাকরির অভিযোগ উঠেছিল সুকন্যার বিরুদ্ধে। অতিরিক্ত হলফনামা গ্রহণযোগ্য নয়, এদিন তা জানিয়ে দিয়েছে হাইকোর্ট।

অনুব্রত মণ্ডলের কন্যা সুকন্যা মণ্ডলকে আপাতত আদালতে হাজিরা দিতে হবে না বলে জানিয়ে দিল কলকাতা হাই কোর্ট। বৃহস্পতিবার বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় এ সংক্রান্ত পুরনো নির্দেশ ফিরিয়ে নিয়েছেন। প্রসঙ্গত, অনুব্রত-কন্যার নিয়োগ বৈধ নয় বলে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছিল আদালতে। সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই সুকন্যা-সহ ছ’জনকে হাজিরা দিতে বলে হাই কোর্ট।

জানা যাচ্ছে, প্রাথমিকের যে মূল দু’টি মামলা রয়েছে, তাতেই অতিরিক্ত হলফনামা জমা পড়ে সুকন্যা এবং ওই পাঁচজনের বিরুদ্ধে। ওই অতিরিক্ত হলফনামা খতিয়ে দেখেছেন বিচারপতি। তাতে তাঁর মনে হয়েছে, পুরনো মামলা এই মুহূর্তে যে পর্যায়ে রয়েছে, তাতে নতুন হলফনামা গ্রহণযোগ্য নয়। তাই সেটি গৃহীত হয়নি। তাই আগের নির্দেশ কার্যকরী থাকে না। তাই সুকন্যা এবং ওই পাঁচজন আদালতে হাজিরা দেওয়া এবং শংসাপত্র পেশ থেকে আপাতত রেহাই পেলেন।

এদিন নির্দিষ্ট সময় মতো হাইকোর্টে আসেন সুকন্যা। তাকে প্রশ্নবাণে ঘিরে ধরে সাংবাদিকরা। কিন্তু কোনও উত্তর দিতে দেখা যায়নি অনুব্রত কন্যাকে। এদিকে কোর্ট চত্বরে অনুব্রত কন্যাকে গরু চোরের মেয়ে বলেও কটাক্ষ করেন জনৈক এক মহিলা।

অন্যদিকে এদিন হাইকোর্টে মামলা শুরুর আগে, সাংবাদিকদের সামনে মুখ খোলেন অনুব্রত।  বীরভূমের তৃণমূল জেলা সভাপতি বলেন, তার মেয়ে পাস করা। সার্টিফিকেট আছে, চিন্তার কিছু নেই। এমনকী দিদির পাশে থাকার বার্তা নিয়ে, অনুব্রতর আত্মতৃপ্তির উক্তি, একজন নেত্রী হিসেবে দিদি তো ঠিকই বলেছেন। সবাই পাশে আছে, কেউ ষড়যন্ত্র করেনি।

 

Related Articles

Back to top button
Close