fbpx
দেশহেডলাইন

সনিয়ার নেতৃত্বে ১০ জনপথের বাড়িতে বৈঠক হল, শুধু ডাক পেল না তৃণমূল

যুগশঙ্খ, ওয়েবডেস্কঃ প্রথমবার গোয়া সফরে গিয়ে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছিলেন, ‘UPA আর কোনও অস্তিত্ব নেই’। বুধবার কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধির বাড়িতে ডাকা বৈঠকে ডাক পেল না তৃণমূল।   তবে বৈঠকে হাজির ছিল অন্যান্য বিরোধী দল। বুধবার সন্ধ্যায় নয়াদিল্লির ১০ জনপথে সনিয়া গান্ধির বাড়িতে বৈঠক করে কংগ্রেস সহ বিরোধী দলগুলি। সেখানে  এনসিপি সুপ্রিমো শরদ পাওয়ার, ডিএমকের টিআর বালু, শিবসেনার রাজ্যসভার দলনেতা সঞ্জয় রাউত, এনসিপির ফারুক আবদুল্লার মতো বর্ষীয়ান নেতারা।  শুধু ছিলেন না তৃণমূলের কোনও প্রতিনিধি।

সনিয়া গান্ধির বাড়ি থেকে বৈঠক শেষে শিবসেনা সাংসদ সঞ্জয় রাউত বলেন,  ‘রাজ্যভিত্তিক বিরোধী ঐক্যই আমাদের মূল লক্ষ্য। এটা আমাদের প্রথম বৈঠক। আবার বৃহস্পতিবারও আমাদের বৈঠক হবে। শরদ পাওয়ার থাকবেন সেই বৈঠকে।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কংগ্রেস মুক্ত বিরোধী অভিযান শুরু করে দিয়েছেন। সম্প্রতি লোকসভায় শীতকালীন অধিবেশন চলাকালীন কংগ্রেস দ্বারা ডাকা বৈঠকে তৃণমূল কংগ্রেস হাজির ছিল না। আর এবার তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় UPA-র অস্তিত্ব নিয়েই প্রশ্ন তুললেন। বিজেপিকে রোখার জন্য মুখ্যমন্ত্রী সমস্ত আঞ্চলিক দলগুলোকে একজোট হতে বলেন। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ইউপিএ-র অস্তিত্ব নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন।

শরদ পাওয়ারের সঙ্গে সাক্ষাতের পর মমতা বলেছেন, এবার ইউপিএ নয়, ফ্যাসিবাদী শক্তির বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্য আলাদা সংগঠন বানাতে হবে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় পুরোপুরি কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন ইউপিএ জোটের অধীনে লড়াই করার সম্ভবনা উড়িয়ে দিয়েছেন।

 

Related Articles

Back to top button
Close