fbpx
পশ্চিমবঙ্গ

দুই সিভিক ভলেন্টিয়ারকে বেঁধে রেখে সোনার দোকানে ডাকাতির চেষ্টা দুষ্কৃতীদের

নিজস্ব প্রতিনিধি, কালনা: দুই সিভিক ভলেন্টিয়ারকে মারধর করে বেঁধে রেখে একটি সোনার দোকানে ডাকাতির চেষ্টা চালালো দুষ্কৃতীরা। তবে শাটার ভেঙে দোকানে ঢুকে পড়তে পারলেও সিন্দুক ভাঙতে না পারায় খালি হাতেই পালাতে বাধ্য হয় দুষ্কৃতীরা। এই ঘটনা জানাজানি হতেই

বৃহস্পতিবার সকাল থেকে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে পূর্ব বর্ধমানের কালনার থানার নেপাকুলি বাজারের ব্যবসায়ী মহলে। খবর পেয়ে এদিন সকালেই নেপাকুলি বাজারে থাকা ওই সোনার গহনার দোকানে তদন্তে যায় কালনা থানার পুলিশ। দুষ্কৃতীদের খোঁজে পুলিশ বিভিন্ন ছায়গায় তল্লাশী চালানো শুরু করেছে।

পুলিশ ও নেপাকুলি বাজারের ব্যবসায়ীদের কথায় জানা গিয়েছে, কয়েকদিন যাবৎ সন্ধ্যা নামলেই এলাকা কুয়াশায় ঢাকা পড়ছে। রাত বাড়ার সাথে সাথে কুয়াশার দাপট আরও বেড়ে যাচ্ছে। তার সূযোগ নিয়ে গভীর রাতে চুরি ডাকাতি করতে নেমে পড়ছে দুষ্কৃতীরা। সোনার দোকানের মালিক সুজিত নন্দি এদিন বলেন, ঘন কুয়াশাকে হাতিয়ার করে দুষ্কৃতীরা বুধবার গভীর রাতে প্রথমমে এলাকায় পাহারারত দুই সিভিক ভলেন্টিয়ারের উপর চড়াও হয়। তাদের মারধোর করে বেঁধে রেখে দিয়ে দুষ্কৃতীরা তাঁর দোকানের শাটার ভাঙে। কিন্তু দোকানে থাকা পুরানো আমলের সিন্দুক ভাঙতে না পারায় দুষ্কৃতীরা তেমন কিছু পারেনি। শুধুমাত্র দোকানের শোকেসে থাকা কয়েক ভরি রুপা নিয়ে পালিয়েছে তারা। ব্যবসায়ীদের দাবি, পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে। আশা করা যায়, দুষ্কৃতীরা নিশ্চই ধরা পড়বে। কালনা থানার পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে।

Related Articles

Back to top button
Close