fbpx
গুরুত্বপূর্ণদেশহেডলাইন

সাম্প্রতিককালে দেশে বাক স্বাধীনতার চূড়ান্ত অপব্যবহার হচ্ছে…গণমাধ্যমগুলিকে ফের সতর্ক করল শীর্ষ আদালত

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: রাজ্যে সাস্প্রতিকতম ঘটনা নিয়ে সুপ্রিম কোর্টকে আগেও সরব হতে দেখা গিয়েছিল ফের আরও একবার বাক স্বাধীনতার চূড়ান্ত অপব্যবহার হচ্ছে বলে জানাল শীর্ষ আদালত। আর এই নিয়ে সরাসরি দেশের গণমাধ্যমগুলির উপরে সরাসরি আঙুল তুলল শীর্ষ আদালত। করোনা আবহের প্রাক্কালে দিল্লিতে যে তাবলিগি জমায়েত হয়েছিল তার রায় দিতে গিয়ে বৃহস্পতিবার ক্ষোভ প্রকাশ করেন সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি এস এস বোবদে।

প্রসঙ্গত করোনার সংক্রমণ যখন উর্দ্ধমুখী তখন দিল্লির নিজামুদ্দিনে তাবলিগ জামাতের জমায়েতকে ঘিরে উত্তপ্ত হয় পরিবেশ। এমনকী এই ঘটনায় কোণঠাসা হয় দিল্লির কেজরি সরকার।

সেই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে মিডিয়ার বিরুদ্ধে “বিদ্বেষ ছড়িয়ে দেওয়ার” মামলা দায়ের হয়েছিল। সেই আবেদনের শুনানি চলাকালীন প্রধান বিচারপতি জানান, সম্প্রতি বাকস্বাধীনতা সবচেয়ে বেশি অপব্যবহার হচ্ছে। গণমাধ্যমকে আরও দায়িত্ব নিয়ে খবর পরিবেশন করা উচিত। না হলে যেকোনও সময়ে হিংসা ছড়িয়ে যেতে পারে।”

যদিও কেন্দ্রের তরফ থেকে গণমাধ্যমের হয়ে হলফনামায় বলা হয়েছে “ওই সময় খারাপ প্রতিবেদনের কোনও উদাহরণ নেই”।এদিন অবশ্য এই হলফনামা তথ্য সম্প্রচার মন্ত্রকের এক জুনিয়ার অফিসার পেশ করেন। যা চূড়ান্ত অপমানজনক বলে মন্তব্য করে সুপ্রিম কোর্ট। সেই সঙ্গে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের সচিবকে এই নিয়ে ফের হলফনামা দায়ের করতে বলা হয়েছে। এমনকী হলফনামার বৈধতা নিয়ে প্রশ্ন তোলা হয়।

আরও পড়ুন:এটা ঈশ্বরের ছদ্মবেশে আশীর্বাদ, তাঁর কৃপায় করোনা আক্রান্ত হই: ট্রাম্প

সুপ্রিম কোর্ট বিচারপতি বোবদে এই নিয়ে সরকার পক্ষের আইনজীবীকে জানান, সুপ্রিম কোর্টের সঙ্গে এভাবে আচরণ করা যায় না। এদিন বিচারপতি প্রশ্ন তোলেন আজ যে হলফনামা দেওয়া হয়েছে তার যথোপযুক্ত প্রমাণ কি আপনাদের কাছে আদৌ আছে? যদি থাকে তাহলে সেটা পেশ করা উচিৎ ছিল। তাই আজকের পেশ করা হলফনামা বাতিল করা হল।

Related Articles

Back to top button
Close