fbpx
আন্তর্জাতিকদেশহেডলাইন

এই প্রথম হিন্দি ভাষায় লিখে বুকার পুরস্কার পেলেন বঙ্গতনয়া গীতাঞ্জলি শ্রী

যুগশঙ্খ, ওয়েবডেস্ক: হিন্দি ভাষায় লেখা কোনও উপন্যাস ইংরেজিতে অনুদিত হওয়ার পরে তা এই প্রথম বুকার পুরস্কার পেলেন ভারতীয় কন্যা গীতাঞ্জলি শ্রী। যে উপন্যাসের জন্য এই পুরস্কার তিনি পেলেন তার হিন্দি নাম ‘রেত সমাধি’। মার্কিন চিত্রকর এবং লেখক ডেইসি রকওয়েল এর ইংরেজি অনুবাদ করেন। বইয়ের নাম দেন ‘টোম্ব অফ স্যান্ড’।

বুকার কমিটি জানিয়েছে, এত সুন্দর ভাবে দার্শনিক তথ্য ফুটিয়ে জীবনের মূল্যবোধ বোঝানোর গল্প তারা আগে পড়েননি।

গল্পের কাহিনি শুরু হয়েছে দেশভাগ নিয়ে। দিল্লির অদূরে উত্তরপ্রদেশে বেড়ে ওঠা লেখিকা এক ৮০ বছরের বৃদ্ধার গল্প শুনিয়েছেন। অবসাদে আক্রান্ত সেই বৃদ্ধা স্বামীর মৃত্যুর পরে জীবনের দ্বিতীয় অধ্যায় শুরু করেন। সমাজের বেড়াগুলি ভেঙে এক নতুন জীবন উপভোগ করতে শুরু করেন। সেখানে তার ঘনিষ্ঠ বন্ধু এক সমকামী ব্যক্তি। কূটনৈতিক বাধা ভেঙে তিনি পৌঁছে যান পাকিস্তান। ছোটবেলায় দেশভাগের যন্ত্রণা নিয়ে যে দেশ তাকে ছেড়ে আসতে হয়েছিল। নতুন করে ফেলে আসা মাটির স্বাদ গ্রহণ করেন তিনি।

বছর ষাটেকের গীতাঞ্জলি এখন দিল্লিতে থাকেন। এমন পুরস্কার পেয়ে তিনি খুশি। ধন্যবাদ জানিয়েছেন অনুবাদক ডেইসিকে। বস্তুত, বইটির জন্য দুই লেখককেই একসঙ্গে পুরস্কার দিয়েছে বুকার কমিটি। পঞ্চাশ হাজার পাউন্ড দুই লেখকের মধ্যে ভাগ করে দেওয়া হয়েছে।

এর আগে ভারতীয় বংশোদ্ভূত ভি এস নাইপল, সলমন রুশদি এই পুরস্কার পেয়েছেন। অনিতা দেশাই, অরুন্ধতী রায়, কিরণ দেশাই, অমিতাভ ঘোষেরা এই পুরস্কার পেয়েছেন। তবে সকলেই পেয়েছেন ইংরেজিতে লেখার জন্য। এই অন্য ভাষায় লেখার জন্য কৃতিত্ব অর্জন করলেন গীতাঞ্জলি শ্রী।

Related Articles

Back to top button
Close