fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

সরকারি নিয়ম মেনেই এবার কালীপুজো হচ্ছে পান্ডুয়াতে

তাপস মণ্ডল, হুগলি: হাইকোর্ট ও রাজ্য সরকারের নিয়ম মেনেই চলতি বছর পান্ডুয়াতে হচ্ছে কালীপুজো। পান্ডুয়া কেন্দ্রীয় কালীপুজো কমিটি সূত্রে জানা গিয়েছে, এখানে ছোট বড় মিলিয়ে বহু পুজো হয়। কেন্দ্রীয় কমিটির অধিনে ৪৬টি কালীপুজো হয়।
পান্ডুয়ার প্রগতি সংঘেরর কালীপুজো এবছর ৬৭বছরে পদার্পণ করল। এবছর তারা ইকোপার্কের আদলে মণ্ডপ তৈরি করেছেন। পাশাপাশি ৩২ফুটের প্রতিমা তৈরি করে দর্শকদের চমক দিতে চলেছেন। দর্শনার্থী এই মণ্ডল স্যানিটাইজার ট্যানেলের মাধ্যমে প্রবেশ করবেন। মণ্ডপে প্রবেশ করার পর দর্শনার্থীদের মনে হবে তারা যেন ইকোপার্কে প্রবেশ করলেন। এরপর তারা ৩২ ফুটের প্রতিমা দর্শন করে ফের স্যানিটাইজার ট্যানেলের মধ্যে দিয়ে বেরিয়ে আসবেন।

পুজোর সম্পাদক হিমাদ্রি রায় বলেন, আমাদের পুজোয় দর্শনার্থীদের প্রবেশ করার জন্যে সরকারি সমস্ত বিধিনিষেধ মেনে চলা হবে। পুজোর বাজেট পাঁচ লক্ষ টাকা।

নিরিদগড় সবুজ সংঘের চলতি বছরের কালী পুজোর থিম পরিবেশ বাঁচাও। এই পুজো মণ্ডপে প্রবেশ করে দর্শনার্থীরা দেখতে পাবে বিরাট বড় একটা নলকূপ। সেখান থেকে জল পড়ছে। তাছাড়াও রয়েছে বন সংরক্ষণের মাধ্যেমে পাখিদের জীবন বাঁচানোর চেষ্টা, প্রতিমার মাধ্যেমে গাছ বাঁচানোর আহ্বান করা হয়েছে। সেখানে কাঠুরিয়া গাছ কাটতে গিয়ে দেবীর রূপ দেখে গাছ না কেটে দেবীর কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করছেন।

আরও পড়ুন: দীপাবলিতে বিলুপ্তির পথে মাটির প্রদীপের প্রাচীন প্রথা

পুজো কমিটির সম্পাদক সানু চক্রবর্তী বলেন, করোনা মহামারীর মধ্যেও পুজো হচ্ছে। তাই সরকারি নিয়ম মেনেই সমস্ত ব্যবস্থা করা হয়েছে।
পান্ডুয়া কালীপুজো সেন্ট্রাল কমিটির সভাপতি সঞ্জয় ঘোষ বলেন, পান্ডুয়ায় সেন্ট্রাল কমিটির অধিনে ৪৬টা কালীপুজো হয়। তবে করোনা মহামারীর কারণে চলতি বছর কেন্দ্রীয় কমিটির তরফে পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠান বন্ধ থাকছে। পাশাপাশি পান্ডুয়ায় কালীপুজোর শোভাযাত্রাও বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। একই সঙ্গে পান্ডুয়ায় সুষ্ঠুভাবে কালীপুজো করার জন্যে সেন্ট্রাল কমিটির তরফে বারোয়ারীগুলিকে মাস্ক ও স্যানিটাইজার দেওয়া হবে।.

Related Articles

Back to top button
Close