fbpx
কলকাতাহেডলাইন

পঞ্চায়েতের কাজ দেখে ক্ষুব্ধ তৃণমূলের সাংসদ মহুয়া

অভিষেক গঙ্গোপাধ্যায় কলকাতা: কৃষ্ণনগর পঞ্চায়েতের কাজে গাফিলতি দেখে  সোশ্যাল মিডিয়াতে নিজের দলের বিরুদ্ধেই ক্ষোভ প্রকাশ করলেন তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্র। সোমবার সোশাল মিডিয়ায় চাঞ্চল্যকর  অভিযোগ করলেন তৃণমূলের ডাকসাইটে  সাংসদ। আর তারপর থেকেই মুহূর্তের মধ্যে ভাইরাল হয়ে যায় মহুয়ার এই ভিডিও। ক্ষোভ উগরে দিয়ে তিনি বলেন ‘হাতে টাকা থাকলেও এলাকায় ঠিকমতো পরিকল্পনা করে কাজ করছে না কৃষ্ণনগর এলাকার বহু পঞ্চায়েত।’
পঞ্চায়েতগুলির উদ্দেশ্য মহুয়া সোশ্যাল  মিডিয়ায় সরাসরি বলেন, ‘আমাদের বড় রাস্তা করতে হবে, নিকাশী নালা করতে হবে, সলিড ওয়েস্ট ম্যানেজমেন্ট, লেডিজ টয়লেট, স্যানিটারি ন্যাপকিন তৈরির ইউনিট তৈরি করতে হবে। বড় কাজগুলো হয়ে হয়ে গেলে ছোট কাজ করুন। টাকা ফেলে রাখবেন না।’
ভিডিও বার্তা তে মহুয়া বলেন, ‘চতুর্দশ অর্থ কমিশন ও পারফরমেন্স বেসড গ্রান্ট মিলিয়ে গড়ে প্রতিবছর প্রতিটি পঞ্চায়েত প্রায় ১ কোটি ২০ লাখ টাকা পায়। পাঁচ বছরে একটি পঞ্চায়েত কমপক্ষে ৫-৬ কোটি টাকা পায়। কিন্তু দেখা যাচ্ছে বহু পঞ্চায়েত তার পুরোনা টাকা খরচ করতে পারেনি। ডিসেম্বর পর্যন্ত ওই টাকার ৬০ শতাংশ খরচ করার নিয়ম। ওই বিপুল টাকা খরচ করলে গ্রামীন এলাকায় একটাও কাঁচা রাস্তা থাকবে না।’ বিরক্ত হয়ে তিনি বলেন, এখনও এলাকায় গেলে মানুষ বলে, দিদি রাস্তা করে দিন।’
মহুয়া মৈত্র আরও বলেন, ‘২০১৪ সালে রাজ্য সরকারের তরফে বলে দেওয়া হয়েছে ৫ লাখ টাকার বেশি কাজ করলে তার ই-টেন্ডার করতে হবে। ই-টেন্ডার করতে হবে বলে অনেক পঞ্চায়েত ৫ লাখ টাকার বেশি কাজই করেনি। সাড়ে তিন লাখের বেশি টাকার কাজ হলে ব্লকের আধিকারিক সেই কাজ রিভিউ করবেন। তাই দেখা যাচ্ছে, ৫০ লাখ টাকার কাজ হচ্ছে ২৫টি স্কিমে। অর্থাত্ গড়ে ২ লাখ টাকার। ওই টাকা দিয়ে ৫০-৬০ মিটারের ছোট ছোট রাস্তা হচ্ছে। কিন্তু বড় রাস্তা হচ্ছে না।’

Related Articles

Back to top button
Close