fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

ভাটপাড়ার আর্যসমাজ মোড়ে প্রকাশ্যে শ্যুট আউট, গুলিবিদ্ধ তৃণমূল কর্মী

অলোক কুমার ঘোষ, ব্যারাকপুর : উত্তর ২৪ পরগনার ভাটপাড়ার আর্যসমাজ  মোড়ে বুধবার সকালে প্রকাশ্য দিবালোকে গুলিবিদ্ধ হলেন তৃণমূল যুব নেতা ধর্মেন্দ্র সিং ওরফে ধারুয়া । প্রকাশ্য দিবালোকে ঘটেছে এই শ্যুট আউটের ঘটনা। জানা গেছে, বাইকে করে  দুই দুষ্কৃতী এসে খুব কাছ থেকে ধারুয়াকে পর পর দুটি গুলি করে । গুলিবিদ্ধ ধারুয়াকে প্রথমে ভাটপাড়া স্টেট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়, সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে তাকে কলকাতার এক বেসরকারি হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়। বর্তমানে সেখানেই চিকিৎসাধীন রয়েছেন তিনি । ভাটপাড়া থানার পুলিশ এই ঘটনার তদন্তে নেমেছে ।

[আরও পড়ুন- মাধ্যমিকে রাজ্যে ষষ্ঠ, নবম ও দশম স্থান পুরুলিয়ার তিন ছাত্রের]

উত্তর ২৪ পরগনার ভাটপাড়ার আর্যসমাজ  মোড়ে জনবহুল এলাকায় একটি বেসরকারি কারখানার সামনে ওই যুব তৃণমূল নেতাকে বাইকে করে আসা দুই দুষ্কৃতী খুব কাছ থেকে এসে গুলি করে পালিয়ে যায়। ওই তৃণমূল নেতা সেই সময় রাস্তার উপরে দাঁড়িয়ে ছিল। জানা গেছে পরপর দুটি গুলি লেগেছে ওই যুব নেতার ঘাড়ে। এই ঘটনা প্রসঙ্গে ভাটপাড়ার তৃণমূল নেতা জিতেন্দ্র সাউ বলেন, “বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিংয়ের গুন্ডা বাহিনী এই ঘটনা ঘটিয়েছে। ওরাই এখন শান্ত ভাটপাড়াকে ফের অশান্ত করতে চাইছে। ওদের গুন্ডারা গুলি চালিয়েছে ।”

এদিকে এই ঘটনার পর বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিং বলেন, “তৃণমূলের গোষ্ঠী কোন্দলের জেরে এই ঘটনা ঘটেছে। যার গুলি লেগেছে সে এখন তৃণমূল কর্মী বলে পরিচিত হচ্ছে। কিন্তু সে আসলে কুখ্যাত আসামী, দুটি খুনের ঘটনায় অভিযুক্ত। বিজেপির পার্টি অফিস দখল করে নেওয়া হচ্ছে, আমরা নিজেদের পার্টি অফিস বাঁচাতে পারছি না। আমরা হিংসার রাজনীতি করি না।” গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে ভাটপাড়া থানার পুলিশ।

Related Articles

Back to top button
Close