fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

রানিগঞ্জের দুটি ধর্মশালাকে “সেফ-হোম” তৈরীর পরিকল্পনা পশ্চিম বর্ধমান জেলা প্রশাসনের

শুভেন্দু বন্দোপাধ্যায়, আসানসোল: করোনা ভাইরাসের  উপসর্গহীন ও কম উপসর্গ থাকা রোগীদের জন্য “সেফ-হোম” তৈরি হচ্ছে রাজ্য জুড়ে। পশ্চিম বর্ধমান জেলাতেও এইরকম ৭ টি সেফ-হোম তৈরি করা হবে বলে জানা গেছে। যার মধ্যে রানিগঞ্জে দুটি সেফ-হোম তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছে জেলা প্রশাসন। রানিগঞ্জের দুটি ধর্মশালাকে ইতিমধ্যেই চিহ্নিত করেছেন জেলা প্রশাসন। রানিগঞ্জের সীতারামজী ভবন ও ভগবান দাস শরাফ স্মৃতি ভবন পরিদর্শন করেছেন আসানসোলের মহকুমাশাসক দেবজিৎ গাঙ্গুলি। উপসর্গহীন ও কম উপসর্গ থাকা রোগীদের জন্য প্রত্যেক পুর ও থানা এলাকায় “সেফ-হোম” তৈরির কাজ শুরু করেছে রাজ্য সরকার। হোটেল, স্টেডিয়াম বা ম্যারেজ হলে “সেফ-হোম” তৈরি করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। সেই “সেফ হোমে” শৌচালয় সহ সব রকমের পরিকাঠামো থাকবে।

[আরও পড়ুন- স্থানীয়দের বাধা সত্ত্বেও করোনায় মৃত ব্যক্তির দেহ সৎকার হল স্থানীয় শ্মশানে]

রাখা হবে একটি চিকিৎসকের দল ও অ্যাম্বুলেন্স। ইতিমধ্যেই রাজ্যে ১০৯ টি “সেফ-হোম” তৈরি করে ফেলেছে রাজ্য সরকার। করোনার মোকাবিলায় আইসিএমআরের নির্দেশিকা মেনে রাজ্য সরকারের ‘সেফ-হোম’ তৈরির উদ্যোগ কেন্দ্রীয় সরকারেরও প্রশংসা পেয়েছে।

 

 

Related Articles

Back to top button
Close