fbpx
কলকাতাহেডলাইন

বিয়ের ৩ বছরের মধ্যেই অস্বাভাবিক মৃত্যু গৃহবধূর! আত্মহত্যার প্ররোচনার অভিযোগে গ্রেফতার স্বামী

অভীক বন্দ্যোপাধ্যায়, কলকাতা: সম্বন্ধ করে বিয়ে হওয়া সত্ত্বেও ছিল মারাত্মক পণের চাপ। জীবন অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছিল রিজেন্ট পার্কের পূর্ব আনন্দ পল্লির বাসিন্দা মীনাক্ষী নস্করের। আর তার জেরেই ঘটে গেল মর্মান্তিক পরিণতি। অভিযোগ, ৩ নভেম্বর মৃতার স্বামী বাবাই নস্কর মীনাক্ষীকে খুন করার হুমকি দিয়ে বলেছিল, বাপের বাড়ি থেকে ৬ লক্ষ টাকা আনতে না পারলে তাকে মেরে ঝুলিয়ে দেওয়া হবে। আর তারপরই ৩ নভেম্বর সন্ধ্যাতেই মীনাক্ষীর শ্বশুরবাড়ি থেকে উদ্ধার হয় তাঁর ঝুলন্ত দেহ। যদিও ৬ নভেম্বর মীণাক্ষীর মৃত্যুর পর পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে আত্মহত্যায় প্ররোচনার অভিযোগে গ্রেফতার করা হয় তার স্বামীকে।
 
পুলিশ সূত্রে খবর, ৩ নভেম্বর সন্ধ্যাতেই প্রতিবেশীরা মীনাক্ষীর বাপের বাড়িতে ফোন করে জানান যে মীনাক্ষীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়েছে।  মীনাক্ষী মারা যাওয়ার পরপরই মৃতার মামাবাড়ির তরফের শ্বশুরবাড়ির বিরুদ্ধে আত্মহত্যার প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগে মামলা রুজু করা হয় রিজেন্ট পার্ক থানায়। মৃতার পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতেই গ্রেফতার করা হয়েছে স্বামীকে। যদিও শ্বশুরবাড়ির অন্য কাউকে এই মামলায় গ্রেফতার করা হয়নি। তবে মীনাক্ষীর বাপের বাড়ির লোকদের অভিযোগ, মীনাক্ষীকে শ্বাসরোধ করে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে। এটি আত্মহত্যার ঘটনাই নয়। যদিও সমস্ত সম্ভাবনা খতিয়ে দেখে ঘটনার তদন্ত চালাচ্ছে পুলিশ।

Related Articles

Back to top button
Close