fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

স্কুল শিক্ষকের বিরুদ্ধের জ্বালানি কাঠ পাচারের অভিযোগ, বিক্ষোভে শামিল গ্রামবাসীরা

শুভঙ্কর মিশ্র, পটাশপুর (পূর্ব মেদিনীপুর): রাতে স্কুল থেকে জ্বালানি কাঠ পাচার করার অভিযোগ উঠল এক স্কুল শিক্ষকের বিরুদ্ধে। এরপর তাঁকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখালো গ্রামবাসীরা। ঘটনার পর গোটা এলাকায় ব্যাপক উওেজনা ছড়িয়ে পড়েছে। গ্রামবাসীরা স্কুলের মধ্যে শিক্ষককে ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন। ঘটনাটি ঘটছে পূর্ব মেদিনীপুর জেলার পটাশপুর ২ ব্লকের খড়ুইগড় হাই স্কুলে। রাতেই প্রায় দুই ঘন্টা ধরে বিক্ষোভ দেখায় গ্রামবাসীরা।

 

জানা গিয়েছে, শুক্রবার রাত ৮টা নাগাদ পূর্ব মেদিনীপুর জেলার পটাশপুর ২ ব্লকের খড়ুইগড় হাই স্কুল থেকে মজুত জ্বালানি কাঠ মেসিং রিক্সা করে পাচার করার সময় গ্রামবাসীদের হাতে ধরা পড়ে স্কুলের ওই শিক্ষক। গ্রামবাসীরা স্কুল থেকে জ্বালানি কাঠ পাচারের অভিযোগ তুলে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন। ঘটনার কথা জানাজানি হতেই কাতারে কাতারে মানুষ ভীড় জমায়। অবশেষে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন স্কুলের অন্যন্য শিক্ষক।

                      আরও পড়ুন: আন্তর্জাতিক বিমান পরিষেবা বন্ধের মেয়াদ আরও বাড়ল

গ্রামবাসীদের পক্ষে নিতাই চন্দ্র বেরা বলেন, বহুদিন ধরে স্কুল থেকে চাল ও ডাল চুরি হচ্ছিল। রাতেই স্কুল থেকে জ্বালানি কাঠ চুরি করে পালানোর সময় হাতেনাতে ধরা পড়ে শিক্ষক। চুরির প্রতিবাদ চাই। যদিও এই অভিযোগ উড়িয়ে স্কুলের শিক্ষক অনুপ সাউ বলেন, আমাদের স্কুলের রান্নার জ্বালানী কাঠ মজুত হয়ে রয়েছে। ক্লাসরুম খালি করতে হবে তাই প্রধান শিক্ষককে বিষয়টি জানাই। শিক্ষকের কথামতো মিড-ডে মিলের দায়িত্বে আমি এবং সহকর্মী শিক্ষক দুই জন মিলে আলোচনা করেই কাঠ মিলের মালিককে ডেকে কাঠ ফেরত দেওয়ার ব্যবস্থা নেই। জ্বালানী কাঠ দেওয়ার সময় গ্রামবাসীরা বাধা দেয় এবং আমাকে আটকে রাখে।

Related Articles

Back to top button
Close