fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

তৃণমূলের গোষ্ঠীর সংঘর্ষ, বোমাবাজিকে ঘিরে থমথমে গলসি, চলছে পুলিশি টহলদারি

প্রদীপ চট্টোপাধ্যায়, বর্ধমান: লকডাউনের মধ্যেও তৃণমূলের গোষ্ঠী সংঘর্ষ ও বোমাবাজি ঘটনা অব্যাহত রয়েছে পূর্ব বর্ধমানের গলসিতে। এলাকার রাজনৈতিক দখলদারি কায়েম নিয়ে তৃণমূলের দুই গোষ্ঠীর সংঘর্ষ ও বোমাবাজির ঘটনা ঘিরে শনিবার সকাল থেকে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছিল গলসির পুরসা গ্রাম। খবর পেয়ে গলসি থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

এরপর এদিন বিকাল পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে পুলিশ সংঘর্ষ ও বোমাবাজির ঘটনায় জড়িত বেশ কয়েকজনকে আটক করেছে। উত্তেজনা থাকায় এলাকায় জারি রয়েছে পুলিশের টহলদারি।

পুরসা এলাকার বাসিন্দারা জানিয়েছেন, এদিন সকালে গ্রামের তৃণমূল কংগ্রেস নেতা সেখ কামালউদ্দিন ওরফে কমল গোষ্ঠীর সঙ্গে সেখ গোলাম মৌর্তজা ওরফে লালন গোষ্ঠীর বিরোধ বাঁধে। কমল গোষ্ঠীর লোকজন লালনের অনুগামী বলে পরিচিত আসগর মণ্ডলের বাড়িতে হামলা চালায় বলে অভিযোগ।

এরপরই পাল্টা হামলা চালায় লালন শেখের লোকজন। শুরু হয়ে যায় দুই পক্ষের মধ্যে বোমাবাজি। দুই পক্ষের লোকজনের বিরুদ্ধে তিনজনের বাড়ি ও একটি দোকানেও ভাঙচুর চলানোর অভিযোগ উঠেছে।

এই খবর পেয়ে গলসি থানার বিশাল পুলিশ বাহিনী ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। দুই পক্ষের বেশ কয়েকজনকেও পুলিশ আটক করেছে।এদিন সন্ধ্যা পর্যন্ত সর্বশেষ পাওয়া খবরে যদিও জানা গেছে , তৃণমূলের দুই গোষ্ঠীর কেউ থানায় কোনও অভিযোগ দায়ের করেনি।
ঘটনার পর থেকে দুই গোষ্ঠীর তৃণমূল নেতারাও মুখে কুলুপ এঁটেছেন।

গলসির তৃণমূল বিধায়ক অলোক মাঝি কে একাধিক বার ফোন করা হলেও তিনি ফোন রিসিভ না করায় কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

Related Articles

Back to top button
Close