fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

বসিরহাটে পানীয় জলের হাহাকার

শ‍্যাম বিশ্বাস, উওর ২৪ পরগনা: বসিরহাট মহাকুমা জুড়ে নেই বিদ্যুৎ। তার কারণে দেখা দিয়েছে পানীয় জলের অভাব। পানীয় জলের সমস্যায় পড়েছে এলাকাবাসীরা।

 

আমফান ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত গোটা বসিরহাট মহাকুমার বিভিন্ন এলাকা। বেশ কয়েকদিন কেটে গেলেও এখনো রাস্তার ধারে পড়ে আছে বিশাল আকারের গাছ, বিদ্যুতের খুঁটিতে। সেই কারণে বিদ্যুৎ পাচ্ছে না এলাকাবাসী, এমনটাই অভিযোগ উঠে আসছে। বসিরহাটের আমতলা এলাকার টাকি রোড রাস্তার ধারে পড়ে আছে বিদ্যুতের খুঁটি থেকে শুরু করে গাছ। বিদ্যুৎ দপ্তর থেকে এখনো এই এলাকায় বিদ্যুৎ পরিষেবা চালু করতে পারেনি।

 

 

অন্যদিকে পানীয় জল পাচ্ছেন না সাধারণ মানুষ। চরম সমস্যায় দিন কাটছে এইসব এলাকার সাধারণ মানুষদের। বিদ্যুৎ না থাকায় যেসব অসুস্থ মানুষদের ইন্সুলেশন নেওয়ার দরকার ফ্রিজ না চলার জন্য ওষুধ মজুদ করে রাখতে পারছে না। তাদের দাবি যত তাড়াতাড়ি সম্ভব রাস্তা থেকে গাছের গুড়ি সরিয়ে ফেলা হোক। প্রশাসন এদিকে নজর দিক তা না হলে আমরা ভীষণ সমস্যায় আছি, আরও সমস্যায় পড়তে হবে।

 

জানা গেছে এই সময় ইদ থাকার কারণে বেশকিছু বিদ্যুৎ কর্মীরা ছুটিতে বাড়ি গেছে, মাএ পঁচিশ ভাগ কর্মী বিদ্যুৎ দপ্তর দেখাশোনা করছে। তাতে আবার লকডাউন চলছিল। তবে আগামী কয়েক দিনের মধ্যে সমস্ত এলাকা স্বাভাবিক করে দেওয়া যাবে বলে আশ্বাস দেওয়া হয়েছে। এ পর্যন্ত বেশ কিছু এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া গেছে, অল্প কিছু জায়গায় এখনো বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া যায়নি, যেহেতু গাছ পড়ে বিদ্যুতের অনেক পোস্ট ভেঙে পড়ে রয়েছে, তাতে আবার কর্মীর সংখ্যা কম। যত তাড়াতাড়ি সম্ভব বাকি এলাকাগুলি বিদ্যুৎ পৌঁছে দেওয়া যায় সেই দিকে নজর রাখা হচ্ছে।

Related Articles

Back to top button
Close