fbpx
গুরুত্বপূর্ণদেশহেডলাইন

উপত্যকায় চিন ঢোকার চেষ্টা করলে আমরাও তৈরি আছি, হুঁশিয়ারি জেনারেল রাওয়াতের

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: ফের চিনকে হুঁশিয়ারি দিল ভারত। ভারত ও চিনের মধ্যে উত্তেজনা কমানোর সব প্রচেষ্টা যদি ব্যর্থ হয়, তাহলে সেনাবাহিনী তৈরি আছে। রবিবার এমনই মন্তব্য করলেন চিফ অব ডিফেন্স স্টাফ জেনারেল বিপিন রাওয়াত। এদিন এক সর্বভারতীয় দৈনিককে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে তিনি বলেন, ভারত ও চিনের মধ্যে সেনাবাহিনী স্তরে আলোচনা চলছে। কূটনীতিকরাও কথাবার্তা বলছেন। তা যদি ব্যর্থ হয়, সামরিক শক্তি প্রয়োগের পথ খোলা রাখা হয়েছে।

             আরও পড়ুন: কেন্দ্রের কাছে NEET, JEE(MAIN)-এর পরীক্ষা স্থগিতের আর্জি মুখ্যমন্ত্রীর 

তিনি বলেন, “পিএলএ যাতে লাদাখে না ঢোকে সেজন্য আমাদের সরকার চেষ্টা করছে। আমরা শান্তিপূর্ণ পথে দুই দেশের বিতর্ক মিটিয়ে ফেলার পক্ষপাতী। কিন্তু লাইন অব অ্যাকচুয়াল কন্ট্রোলে আগের অবস্থা ফিরিয়ে আনার সব চেষ্টা যদি ব্যর্থ হয়, তাহলে সেনাবাহিনী তৈরি আছে।” জেনারেল রাওয়াত আরও জানান, লাদাখে স্থিতাবস্থা বজায় আছে কিনা তা খতিয়ে দেখছেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং ও জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভাল।

উল্লেখ্য, গত আড়াই মাসে সামরিক ও কূটনৈতিক স্তরে বেশ কয়েক দফা আলোচনা চালিয়েছে ভারত ও চিন। কিন্তু পূর্ব লাদাখ নিয়ে বিতর্কের মীমাংসার সম্ভাবনা দেখা যায়নি। গত বৃহস্পতিবার ফের দুই দেশের মধ্যে কূটনৈতিক স্তরে বৈঠক হয়। তারপর বিদেশমন্ত্রক জানায়, দুই দেশের চুক্তি ও প্রোটোকল মেনে দ্রুত লাদাখ নিয়ে বিতর্ক মিটিয়ে ফেলা হবে। জুলাইয়ের শুরুতে সীমান্তে উত্তেজনা কমানোর জন্য অজিত ডোভাল ফোনে দু’ঘণ্টা কথা বলেন চিনের বিদেশমন্ত্রী ওয়াং ই-র সঙ্গে। তারপর সীমান্তে দুই দেশই সেনার সংখ্যা কমিয়ে আনতে থাকে। কিন্তু জুলাইয়ের মাঝামাঝি থেকে সীমান্তে ফের অচলাবস্থা তৈরি হয়।

Related Articles

Back to top button
Close