fbpx
দেশহেডলাইন

“এই গ্রামে আমরা সুরক্ষিত নই”, সরকারের কাছে আবেদন হাথরাস কাণ্ডের নির্যাতিতার পরিবারের

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: “এই গ্রামে আমরা সুরক্ষিত নই”। উত্তরপ্রদেশ সরকারের কাছে এমনটাই আবেদন করল হাথরাস কাণ্ডের নির্যাতিতার পরিবার। হাথরাসের তরুণীকে গণধর্ষণের ঘটনায় উত্তাল হয়ে ওঠে গোটা দেশ। ঘটনার তদন্তে নামে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা সিবিআই। ঘটনার সঙ্গে যুক্ত থাকার দায়ে বেশ কয়েকজনকে গ্রেফতারও করে পুলিশ।

জানা যাচ্ছে, নির্যাতিতার পরিবারকে আগেই “হুমকি” দেওয়া হয়েছিল, গন মাধ্যমের প্রতিনিধিরা চলে যাবে। রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বদের আনাগোনা কমবে। কিন্তু তাদের থাকতে হবে সেই গ্রামে। কিন্তু তা সত্ত্বেও দমে যাননি হাথরাসের নির্যাতিতার পরিবার। কিন্তু এবার আর সংশ্লিষ্ট গ্রামে নিজেদের সুরক্ষিত মনে করছেন না তারা। তাড়াতাড়ি পরিবার সমেত দিল্লিতে স্থানান্তরিত হতে চান নির্যাতিতার পুরো পরিবার। সূত্রের খবর, নির্যাতিতার ভাই যোগী প্রশাসনের কাছে সাহায্যের আবেদন জানিয়েছে গ্রাম থেকে দিল্লিতে স্থানান্তরিত হওয়ার জন্য ।

আরও পড়ুন: বাম শাসিত কেরলে সোনা পাচার মামলায় মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়নের পদত্যাগ দাবি বিজেপির

নির্যাতিতের ভাইয়ের কথায়, “পুরো পরিবার এই গ্রামের সুরক্ষিত আছে বলে মনে করছি না। সকলেই আমরা দিল্লিতে স্থানান্তরিত হতে চাই। সরকারের কাছে এই বিষয়ে সাহায্যের জন্য আবেদন জানাচ্ছি।” প্রসঙ্গত, উত্তরপ্রদেশের হাথরাসে একটি কুড়ি বছরের দলিত তরুণীকে ধর্ষণ করে তার জিভ কেটে ফেলে যায় ৪ ব্যক্তি। ২৯ সেপ্টেম্বর দিল্লির হাসপাতালে মৃত্যু হয় ওই তরুণীর।

অভিযোগ, ওই তরুণী পরিবারকে দেহটি শেষবারের মতো দেখতেও দেওয়া হয়নি। পুলিশ জোর করে রাতের অন্ধকারে শেষকৃত্য সম্পন্ন করে তার। পুরো ঘটনাই ক্ষোভে ফুঁসছে গোটা দেশ। এই ঘটনায় আবারো প্রকাশ্যে এসেছে বর্ণ বিভেদ। ঘটনায় অভিযুক্ত ব্যক্তিদের সুরক্ষার জন্য স্থানীয় এক বিজেপি নেতার বাড়িতে সালিশি সভা বসেছিল। বর্তমানে হাথরাসে আনাগোনা কমেছে রাজনৈতিক নেতাদের। এই পরিস্থিতিতে নির্যাতিতার পরিবারের এই দাবি অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করা হচ্ছে।

Related Articles

Back to top button
Close