fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

তৃণমূল কংগ্রেসে থাকলেই সৎ, আর দল ছেড়ে বেরিয়ে গেলেই সমাজবিরোধী: অগ্নিমিত্রা

শুভেন্দু বন্দ্যোপাধ্যায়, আসানসোল: রাজ্যজুড়ে আইনশৃঙ্খলার অবনতি, সন্ত্রাস, বিজেপি কর্মীদের খুনের পাশাপাশি মহিলাদের ধর্ষণ বেড়ে যাওয়ার প্রতিবাদে সোমবার বিজেপির পক্ষ থেকে থানায় থানায় বিক্ষোভ দেখানো ও স্মারকলিপি দেওয়ার কর্মসূচি পালন করা হয়।
এদিন আসানসোলের রানিগঞ্জ টাউন ব্লক ও রানিগঞ্জ গ্রামীণ ব্লকের বিজেপি মন্ডলের পক্ষ থেকে রানিগঞ্জ থানায় বিক্ষোভ দেখানো হয়। নেতৃত্ব দেন বিজেপির রাজ্য মহিলা মোর্চার সভানেত্রী অগ্নিমিত্রা পল।

এছাড়াও ছিলেন রানিগঞ্জ টাউন সভাপতি দীনেশ মন্ডল, গ্রামীণ ব্লক সভাপতি মহিলা মোর্চার সভানেত্রী সহ বিজেপির নেতৃবৃন্দ।
অগ্নিমিত্রা বলেন, রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা একেবারে ভেঙে পড়েছে। পুলিশ প্রশাসনকে এই সরকার দাসে পরিণত করেছে। একের পর এক আমাদের দলের কর্মীরা খুন হচ্ছে। অথচ আমাদের কর্মীদের মিথ্যে মামলায় কেস দেওয়া হচ্ছে। তাদেরকে জেলে পাঠানো হচ্ছে। মহিলাদের নির্যাতন করা হচ্ছে৷ এই সব কিছু নিয়েই আমরা বাংলার থানায় থানায় বিক্ষোভ দেখাচ্ছি। তিনি আরও বলেন, বর্তমান সরকার থেকে মানুষ সরে যাচ্ছে৷ তাই আগামী ২০২১ সালের বিধানসভা ভোটে জিতে বাংলায় বিজেপি সরকার গড়বে। তাই চারিদিকে পদ্মের ফুল ফুটতে দেখা যাচ্ছে।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, রাজ্য সরকার মিথ্যেবাদী সরকার৷ যখন তৃণমূল কংগ্রেসে কেউ থাকে তখন সে সৎ। আর যখন তৃণমূল কংগ্রেস থেকে বিজেপিতে যোগদান করে তখন সে সমাজবিরোধী হয়ে যায়। তার উপর একের পর এক কেস দেওয়া হতে থাকে৷ তার সবচেয়ে বড় উদাহরণ ব্যারাকপুরের সাংসদ অর্জুন সিং। এই সরকার ৯ বছর থাকার পরেও বাংলার কিছুই করেনি। কেন্দ্র সরকার মানুষদের জন্য যে সমস্ত প্রকল্প করছে, তা বাংলার মানুষের কাছে পৌঁছাচ্ছে না। এই সরকার লুটেরাদের সরকার, খুনিদের সরকার। মানুষ আর এদেরকে চাইছে না৷ তাই এই রাজ্য ২০২১ সালে বিজেপি সরকার হচ্ছে।

পুলিশ প্রশাসনের আধিকারিকদের বলতে চাই, আপনারা নিজেদের কাজ করুন আইন মেনে। শাসক দলের দল দাসের মতো কাজ না করে নিজেদের কাজ করুন। কেননা যখন বিজেপি সরকার আসবে তখন সরকারের মাথা কালীঘাটের কোন গলিতে লুকিয়ে থাকবে। তখন আপনাদের কে বাঁচাবে? সব পুলিশ সমান নন৷ কয়েকজন পুলিশ অফিসার আছেন যারা পচা আলুর মতো। এইসব পচা আলু গোটা সমাজটাকে নষ্ট করার চক্রান্ত করে। তাই এই পচা আলুগুলোকে ভালো আলু থেকে বাদ দিয়ে বস্তা ফেলে দিতে হবে। তবে সঠিকভাবে মানুষ পুলিশ প্রশাসনকে পাবেন।

আরও পড়ুন:তিনদিনের সামরিক শক্তি প্রদর্শনে কোয়াডা, নৌমহড়ায় এবার ভারত, জাপান, আমেরিকা, অস্ট্রেলিয়া

এদিন রানিগঞ্জের প্রসিদ্ধ ষোলআনা দুর্গা মন্দিরে অগ্নিমিত্রা পল পুজো দেন।

এদিন কুলটি থানার সামনেও বিজেপির পক্ষ থেকে বিক্ষোভ দেখানো হয়। পাশাপাশি থানার আধিকারিকের হাতে একটি স্মারকলিপিও দেওয়া হয়। অন্যদিকে, এদিন বারাবনি বিজেপি মন্ডলের পক্ষ থেকে বারাবনি থানায় বিক্ষোভ দেখানো হয়। ছিলেন বারাবনি মন্ডলের সভাপতি সাধন রাউত, মলয় উপাধ্যায়, কৃষ্ণপদ নাথ গোস্বামী সুজিত মণ্ডল, গোপীনাথ মণ্ডল সহ অন্যান্যরা।

Related Articles

Back to top button
Close